একাধিক সিম কার্ড ব্যবহার করেন? জানুন TRAI এর নির্দেশিকা

8
একাধিক সিম কার্ড ব্যবহার করেন? জানুন TRAI এর নির্দেশিকা

আপনি কি একাধিক সিম কার্ড ব্যবহার করেন? তাহলে এই প্রতিবেদন আপনারই জন্য। ট্রাই এর তরফ থেকে জানানো হয়েছে, যদি এক ব্যক্তির ৯ টি সিম কার্ডের বেশী সিম কার্ড থাকে তাহলে সেই ব্যক্তির সিম কার্ড পুনরায় যাচাই করা হবে ও যাচাই করা না হলে সেইসব সিমকে বন্ধ করে দেওয়া হবে।

এখানেই শেষ না, ট্রাইয়ের তরফ থেকে আরো জানানো হয়েছে, যদি কোনো ব্যক্তি জারি করা নির্দেশের বেশী সিম কার্ড ব্যবহার করে তাহলে সেগুলোর মধ্যে পছন্দ মতো সিমকার্ড রেখে বাকিগুলো বন্ধ করার অপশনও দেবে সংস্থা। তবে হ্যাঁ যদি নির্ধারিত সিম কার্ডের বেশী সিম কার্ড গ্রাহকদের কাছে থাকে, তাহলে সেটা পুনরায় যাচাই হবে।

বিভিন্ন ফ্রড কল, আপত্তি জনক কল, স্বয়ং ক্রিয় কল এই সমস্ত কলের ঘটনাকে মাথায় রেখেই ডি ও টি টেলিকম সংস্থাগুলো এই পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। যা কিনা এইসবের আওতায় আসে, বা যেসব নম্বর একেবারেই ব্যবহার হচ্ছে না সেইসব নম্বর একেবারেই ডেটাবেস থেকে মুছে ফেলার কথা বলছে সংস্থা।

আগের নিয়মে আর নেই, সেটা বদলে গেছে সেপ্টেম্বর মাসেই। যদি আপনাকে এখন নতুন সিম কার্ড নিতে হয় তাহলে কে ওয়াই সি হবে ডিজিটাল। কোনো ধরনের কাগজ জমা দিতে হবে না , পোস্ট পেইড , প্রি পেইড সিম নেওয়ার মতো কোনো ধরনের কাগজ জমা করতেই হবে না, যা হবে একেবারেই পেপার লেস।

আপনি এখন নতুন সিম নিলে আপনাকে সেই সংস্হার অ্যাপ থেকে ১ টাকা খরচ করে কে ওয়াই সি করতে হবে। যদি কোনো গ্রাহক এখন পোস্ট পেইড থেকে প্রিপেইড কিংবা প্রিপেইড থেকে পোস্ট পেইড সিম পরিবর্তন করে তাহলে তাকে কে ওয়াই সি করতেই হবে, তবে সেটা একবারের জন্যই।

অনেকেই সেল্ফ কে ওয়াই সি করে থাকে, তবে তার জন্য যা যা করণীয় সেটা হল সিম প্রদান কারীর আবেদন ডাউনলোড করা, এরপরেই আপনাকে আপনার ফোনের সঙ্গে লিঙ্ক করতে হবে ও এরপরেই দিতে হবে একটি বিকল্প নম্বর। এরপরেই আপনাকে পাঠানো হবে ওটিপি, আর তারপরেই লগ ইন করে সেল্ফ কে ওয়াই সি অপশন বেছে নিতে হবে।।