গবেষক এবং হ্যাকারদের জন্য একটি বিশেষ প্রোগ্রাম ঘোষণা করল টুইটার

8
গবেষক এবং হ্যাকারদের জন্য একটি বিশেষ প্রোগ্রাম ঘোষণা করল টুইটার

Twitter- যা একটি মাইক্রো ব্লগিং সাইট। একটি Bug Bounty Program ঘোষণা করেছে। এই প্রোগ্রামটি মূলত চালু করা হয়েছে কম্পিউটার গবেষক এবং হ্যাকারদের জন্য। এটি সম্পর্কে বলা হয়েছে যে যদি কেউ প্রযুক্তিতে ব্যবহৃত অ্যালগরিদমে বাগ বা ত্রুটি ধরিয়ে দিত পারে তবে তাকে পুরস্কারস্বরূপ দেওয়া হবে ৩৫০০ ডলার ( ভারতীয় মুদ্রায় যার মূল্য প্রায় ২ লক্ষ ৬০ হাজার ৩০০ টাকা)।

প্রতিযোগিতায় বিজয়ীরা ৫০০ ডলার থেকে সাড়ে ৩ হাজার ডলার পর্যন্ত নগদ অর্থ পুরস্কার পাবেন এবং আগস্টে ডেফ কনে ট্যুইটারের আয়োজিত কর্মশালায় নিজেদের কাজ উপস্থাপনের সুযোগ পাবেন।

উক্ত প্রতিযোগিতার মাধ্যমে কম্পিউটার গবেষক এবং হ্যাকাররা ইমেজ-ক্রপিং অ্যালগরিদমের পক্ষপাত শনাক্ত করবেন। ছবি ক্রপিংয়ে তাদের অ্যালগরিদম পক্ষপাতমূলক আচরণ করে, গত বছর এমন অভিযোগে তীব্র সমালোচনার মুখে পড়েছিল ট্যুইটার।

ট্যুইটারের বিরুদ্ধে অভিযোগ রয়েছে যে এর অ্যালগরিদম অশ্বেতাঙ্গ মানুষের সাথে বৈষম্যমূলক আচরণ করে। গত বছর একদল গবেষকের এই ব্যাপারটি চোখে পড়ে। গবেষকগণ খুঁজে পেয়েছিলেন ট্যুইটারের ছবি ক্রপিং অ্যালগরিদমে সমস্যা। তারা জানান, অ্যালগরিদমটি কৃষ্ণাঙ্গ নারী ও পুরুষকে ছবি থেকে বাদ দিয়ে দেয়। পরে গোটা বিষয়টি খতিয়ে দেখ মে মাসে ট্যুইটারের এক গবেষণায় জানানো হয়, তাদের মেশিন লার্নিং গবেষকরা নারীদের সমতার পক্ষে ৮ শতাংশ ভিন্নতা খুঁজে পেয়েছেন এবং শ্বেতাঙ্গ ব্যক্তিদের বেলায় ৪ শতাংশ ভিন্নতা খুঁজে পেয়েছেন ।

বলে রাখা ভালো, হ্যাকারদের বৃহত্তম বার্ষিক সম্মেলনের মধ্যে ডেফ কন অন্যতম। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ট্যুইটার ফিডে ছবি কীভাবে ক্রপ হবে, সে সিদ্ধান্ত নেওয়া বিষয়ক যে কম্পিউটার কোডটি রয়েছে, তা সবার জন্য প্রকাশও করে দিয়েছে ট্যুইটার। অ্যালগরিদমটি কীভাবে স্টেরিওটাইপিং বা কোনো গোষ্ঠীর প্রতি পক্ষপাত করে ক্ষতি করতে পারে, সেটি অংশগ্রহণকারীদের খুঁজে বের করার আহ্বানও জানিয়েছে ট্যুইটার।