এই ৫ রাশির জীবনে আসতে চলেছে দুঃসময়! দেখে নিন

5
এই ৫ রাশির জীবনে আসতে চলেছে দুঃসময়! দেখে নিন

নতুন বছরের শুরুতেই শনি রাশি বদল করেছে। ১৭ই জানুয়ারিতে কুম্ভ রাশিতে প্রবেশ করেছে শনি, আগামী ৩১ শে জানুয়ারি ওই রাশিতেই শনি অস্ত যাচ্ছে এবং ৫ই মার্চ মাস আবার শনি উদিত হতে চলেছে। এরকম অবস্থায় ৩৩ দিন দুর্বল অবস্থায় থাকবে শনিদেব, ফলে ৩৩ দিন ৫ রাশির জীবনে আসতে চলেছে দুঃসময়।

প্রথমেই রয়েছে মেষ রাশি। এই রাশির দশম ঘরে অস্ত যেতে চলেছে শনি, যার ফলে পেশাগত এবং সামাজিক জীবনে নানা রকম সমস্যা সম্মুখীন হতে হবে এই রাশি জাতক জাতিকাদের। পেশাগত জীবনে উত্থানগত আসতে চলেছে এবং আর্থিক ক্ষতি হওয়ার সম্ভাবনাও রয়েছে। এইরকম অবস্থা থেকে বাঁচার জন্য এর প্রতিকার হিসেবে প্রত্যেক শনিবার ফল দান করতে হবে এই রাশির জাতক জাতিকাদের।

এর পরেই রয়েছে কর্কট রাশি, এই রাশির সপ্তম ঘরে অস্ত যাবে শনি। এর প্রভাবে এই রাশির জাতক জাতিকাদের কেরিয়ারের উপর খারাপ প্রভাব পড়বে। এমনকি ব্যবসায়ীদের নানা সমস্যার সম্মুখীন হতে পারে এ রাশির জাতক-জাতিকারা। এই সময়ে এই ৩৩ দিন ক্যারিয়ার সংক্রান্ত কোনো বড় সিদ্ধান্ত না নেওয়াই উচিত এবং এই সময়ে বিবাহিত জাতক-জাতিকাদের ক্ষেত্রে খারাপ সময় আসতে পারে। এর প্রতিকার হিসেবে শনিবার হনুমানজির পুজো করা উচিত এবং সুন্দর কান্ড পাঠ করা উচিত।

এর পরেই রয়েছে সিংহ রাশি, এই রাশির জাতক জাতিকাদের ষষ্ঠ ঘরে শনি অবস্থান করছে। এই সময় এই রাশি জাতক জাতিকাদের স্বাস্থ্যের দিকে বিশেষ সচেতন হতে হবে। এ সময় অশুভ সংবাদ পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। যারা ব্যবসায়ী তাদের এই সময়টা বেশ কঠিন হতে চলেছে। প্রতিকার হিসাবে এই রাশি জাতক-জাতিকাদের এই সময়ে শনিবার উপবাস থেকে শনিদেবের পুজো করা উচিত।

বৃশ্চিক রাশি, এই সময়ে পরিবারের আপনজনদের সঙ্গে বিরোধ বাধার সম্ভাবনা রয়েছে এবং পরিবারের সদস্যদের বিতর্ক থেকে এড়িয়ে চলুন। ব্যবসা দিক থেকে কোন চুক্তি করবেন না এবং যেকোনো বড় বিনিয়োগ এড়িয়ে চলুন। প্রতিকার হিসেবে প্রত্যেক শনিবার অসত্য গাছের সরষের তেল দিয়ে প্রদীপ জ্বালাতে হবে।

এর‌পরেই আছে কুম্ভ রাশি। এই সময়ে এই রাশির জাতক জাতিকাদের কেরিয়ার সংক্রান্ত কোনো সিদ্ধান্ত যদি নিতে হয় তবে অনেক ভেবেচিন্তে নিতে হবে। এই সময় আর্থিক দিক থেকে দুর্বল হয়ে পড়ার সম্ভবনা রয়েছে। চাকুরীজীবীদের ক্ষেত্রে অফিসের চাপ বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এই সময় কোন রকম বিনিয়োগ না করাই উচিত। প্রতিকার হিসেবে এই সময় শনিবার ডাল দান করুন।