এবার ‘লক্ষ্মীর ভাণ্ডার” নামে প্রকল্পের নাম বদলের আবেদন জানালো রাজ্যের সংখ্যালঘু সংগঠন

34
এবার ‘লক্ষ্মীর ভাণ্ডার” নামে প্রকল্পের নাম বদলের আবেদন জানালো রাজ্যের সংখ্যালঘু সংগঠন

‘লক্ষ্মীর ভাণ্ডার” নামে প্রকল্পের নাম বদলের আবেদন সংখ্যালঘু সংগঠনের। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নির্বাচনী প্রতিশ্রুতিতে বাংলার মহিলাদের মাসে ৫০০ থেকে ১ হাজার টাকা পর্যন্ত টাকা দেওয়ার ঘোষণা করেছিলেন।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নির্বাচনে জয়লাভ করার পর সেই প্রতিশ্রুতি মতো ‘লক্ষ্মী ভাণ্ডার” নামের একটি প্রকল্প শুরু করেন। এই প্রকল্পের ফর্ম বিলি শুরু হয়েছে দুয়ারের সরকার অভিযানের মাধ্যমে।

গোটা বাংলায় লক্ষ্মীর ভাণ্ডার প্রকল্পে ব্যাপক সাড়াও মিলেছে। লক্ষ লক্ষ মানুষ দুয়ারের সরকার অভিযানের মাধ্যমে এই প্রকল্পে নাম লেখাতে তৎপর হয়েছে। তবে এই প্রকল্পে নাম লেখানো নিয়ে বিভিন্ন জায়গা থেকে বিশৃঙ্খলার চিত্রও উঠে এসেছে।

একটি সংগঠন আর এরই মধ্যে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্বপ্নের এই প্রকল্পের নাম পরিবর্তন করার দাবি তুলল। নস্যশেখ উন্নয়ন পরিষদ নামের একটি সংগঠন এই প্রকল্পের নাম পরিবর্তন করার আবেদন জানিয়েছে।

এই সংগঠনের কেন্দ্রীয় কমিটির সম্পাদক আমিনাল হক একটি ভিডিও বার্তার মাধ্যমে মুখ্যমন্ত্রীকে লক্ষ্মীর ভাণ্ডার প্রকল্পের নাম পরিবর্তন করার আবেদন জানিয়েছেন। আমিনাল হক ফাইল ছবি
ভিডিও বার্তার মাধ্যমে তিনি বলেছেন, ‘মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে এই প্রকল্প শুরু করার জন্য সাধুবাদ জানাই। আর এর সঙ্গে ওনাকে এই প্রকল্পের নাম বদলে মাতৃ ভাণ্ডার করার দাবিও জানাচ্ছি। এর ফলে ধর্মনিরপেক্ষতা বজায় থাকবে।”

পাশাপাশি তিনি সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মহিলাদের ১ হাজার টাকা করে দেওয়ার আবেদনও জানিয়েছেন।