ফের রাজ্যের এক বিখ্যাত জেলার নাম বদলানোর সিদ্ধান্ত নিলেন যোগী সরকার

11
ফের রাজ্যের এক বিখ্যাত জেলার নাম বদলানোর সিদ্ধান্ত নিলেন যোগী সরকার

নিজের শাসনকালে অনেক বড় শহর শহর এবং রেলস্টেশনের নাম বদলে ফেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন উত্তরপ্রদেশের যোগী সরকার তবে এবার তারা যে সিদ্ধান্ত নিতে চলেছেন, তাতে করে মুঘল আমলের একটি অংশ প্রায় নিশ্চিহ্ন হয়ে যেতে পারে। কাচের চুড়ির জন্য বিখ্যাত ফিরোজাবাদ জেলার নাম বদলানোর সিদ্ধান্ত নিতে শুরু করেছেন যোগী সরকার। ব্লক প্রধান ডক্টর লক্ষী নারায়ন যাদব এর নেতৃত্বে এই নাম বদলে রাখা হবে চন্দ্রনগর।

ফিরোজাবাদের ইতিহাস সম্পর্কে জানাতে গিয়ে অনুপ চন্দ্র জানিয়েছেন, এই শহরের প্রাচীন নাম ছিল চন্দ্রবাড়। ১৫৫৬ সালে আকবর এর শাসনকালে ফিরোজশাহ দ্বারা এই শহরের নাম বদলে রাখা হয়েছিল ফিরোজাবাদ। আকবরের আমলে অর্থমন্ত্রী টোডরমল ফিরোজাবাদ এসেছিলেন তীর্থযাত্রা করার জন্য। ওনাকে আপ্যায়ন করার জন্য ফিরোজশাহকে পাঠানো হয়েছিল তাই এই শহরের নাম বদলে রাখা হয়েছিল ফিরোজাবাদ। এই শহরে ফিরোজ শাহের সমাধি পর্যন্ত রয়েছে।

নাম বদলে ফেলার বিষয়ে শহরের বিধায়ক বলেন, এই শহরটি গড়ে তুলেছিলেন জৈন রাজা চন্দ্র সেন। এখানে বহু জৈন মন্দির বানিয়ে ছিলেন তিনি। তবে মুঘল শাসকদের আক্রমণ করে সেইসব মন্দির ভেঙে দিয়েছিল এবং নাম বদলে রেখেছিল ফিরোজাবাদ। তাই এবার বেশিরভাগ মানুষ এই নাম বদলে চন্দ্রবাড় রাখতে চাইছেন।

নবনির্বাচিত জেলা পঞ্চায়েত সভাপতি হর্ষিতা সিং জানিয়েছেন, জেলা পঞ্চায়েত সদস্য এবং জনপ্রতিনিধিরা অনেকদিন ধরেই চাইছিলেন এই শহরের নাম পাল্টে দেওয়া হোক। এই শহরকে আরো একবার পুরনো নামে ফিরিয়ে আনা হোক। উনারা সকলেই চাইছেন এই শহরের নাম চন্দ্রনগর অথবা চন্দ্রবার রাখা হোক।