মার্কিন বিমান বাহিনীর হা’ম’লা’য় নি’হ’ত ৮ তালিবান জ’ঙ্গী

6
মার্কিন বিমান বাহিনীর হা'ম'লা'য় নি'হ'ত ৮ তালিবান জ'ঙ্গী

পাকিস্তান-আফগানিস্তান সীমান্তে অবস্থিত স্পিন বোল্ডাক এলাকাটি কিছুদিন আগেই তালিবানদের দখলে চলে গিয়েছিল। ওই এলাকায় তালিবানদের দখলমুক্ত করার জন্য আপ্রাণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন আফগান সেনারা। তবে আফগানিস্তানের সেনারা যতবার ওই এলাকা থেকে তালিবানদের উচ্ছেদ করার জন্য বিমান হামলা চালিয়েছে, ততবারই পাকিস্তানের তরফ থেকে আফগানিস্তানের বিরোধীতা করা হয়েছে। তবে এখন যখন আমেরিকা তালিবানদের বিরুদ্ধে যুদ্ধে নেমেছে তখন পাকিস্তান টু শব্দটিও করছে না।

শুক্রবার মার্কিন বিমান বাহিনীর যুদ্ধবিমান কান্দাহার প্রদেশের স্পিন বোল্ডাক জেলায় তালিবানদের একটি যুদ্ধবিমানে আঘাত হেনেছে। যার ফলে ৮ জন তালিবান জঙ্গী খতম হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। তালিবানদের লাগাতার আক্রমণের পাল্টা দিতে কান্দাহার বিমানবন্দরে ক্যাম্প করেছে মার্কিন বিমান বাহিনী। আফগান নিরাপত্তা বাহিনীর সমর্থনে আফগানিস্তানের দক্ষিণ ও পশ্চিমাঞ্চলে বিমান হামলা চালিয়ে যাচ্ছে মার্কিন সেনা।

কান্দাহার শহর রক্ষার্থে প্রয়োজনে B52 বিমান ব্যবহার করতেও প্রস্তুত মার্কিন বিমান বাহিনী, এমনটাই জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। উল্লেখ্য, B52 আমেরিকার সবচেয়ে মারাত্মক বোমারু বিমান। যে কোনো জায়গায় পারমাণবিক বোমার আঘাত আনতে সক্ষম আমেরিকার এই যুদ্ধ বিমান। একবার সফর চালিয়েই বড় কোনো শহরকে এক নিমেষের মধ্যেই ধূলিস্মাৎ করতে সক্ষম এই বিমান।

তালিবানদের রুখতে মার্কিন সেনাবাহিনীর এমন উদ্যোগ কার্যত চুপ করেই সহ্য করছে ইমরান খানের প্রশাসন। পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের তরফ থেকে এই বিষয়ে কোনো মন্তব্য করা হয়নি। অপরপক্ষে তালিবানদের যে যুদ্ধের ট্যাঙ্কটি এদিন ধ্বংস করেছে মার্কিন সেনাবাহিনী, তা সোভিয়েত ইউনিয়নের যুগের ছিল বলে জানানো হয়েছে।