৮ দফা ভোট নিয়ে মামলা খারিজ করে দিল সুপ্রিম কোর্ট

12
৮ দফা ভোট নিয়ে মামলা খারিজ করে দিল সুপ্রিম কোর্ট

এবারের ভোটটা যে বিশেষ আলাদা সেটা প্রত্যেক মুহূর্তে বোঝা গেছে তবে এবারের ভোট বিশেষ ভাবে আলাদা হয়ে গেল যখন ঘোষণা করল বাংলায় ভোট হবে ৮ দফায়। ৮ দফা ভোটের বিরোধিতা করেছিল অনেকেই এবং যার জন্য সুপ্রিম কোর্টে মামলা দায়ের করা হয়েছিল কিন্তু এই মামলা সুপ্রিম কোর্ট মঙ্গলবার দিন খারিজ করে দেন। ৮ দফায় ভোটের মামলার সঙ্গে সঙ্গে বিজেপি জয় শ্রীরাম ধ্বনি ব্যবহার করে সেটা বন্ধ করার জন্য মামলা দায়ের করা হয়েছিল, কিন্তু সুপ্রিমকোর্ট সেটাও খারিজ করে দেয়।

ভোট শুরু হবে ২৭শে মার্চ থেকে এবং শেষ ভোটের দিন হল ২৯ শে এপ্রিল। ১ মাস ধরেই বাংলায় ভোট পর্ব চলবে কিন্তু কেন এই ধরনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হলো বাংলার ক্ষেত্রে কেন ৮ দফা ভোটের ব্যবস্থা করা হল সে বিষয়ে প্রশ্ন উঠেছে এবং এই প্রশ্নের ওপর ভিত্তি করেই সুপ্রিম কোর্টে মামলা করা হয়েছিল। মঙ্গলবার দিন সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি এসএ বোবদের এই মামলাটি বিষয়ে বলেন যে, এই মামলাটা যেহেতু নির্বাচনী বিষয়ে সেইজন্য এটা হাইকোর্টের দ্বারস্থ হওয়া যেতে পারে।

এক আইনজীবী মনোহর লাল শর্মা হাইকোর্টে যাওয়ার এই ব্যাপারটি মেনে নেননি, সেই জন্যেই এই মামলাটা অবশেষে খারিজ করা হয়েছে। মামলাকারী বলেন যে, এটা শুধুমাত্র যে নির্বাচনের জন্যই পিটিশন দেওয়া হয়েছে তা নয় এখানে একটি দল ধর্মীয় ব্যাপারকে নিয়ে রাজনৈতিক ক্ষেত্রে স্লোগান হিসেবে ব্যবহার করছে এবং এই জয় শ্রীরাম ধ্বনিটি স্বাভাবিকভাবেই রাজনৈতিক ক্ষেত্রে ব্যবহারের যোগ্য নয়।

এই স্লোগানটিকে অবশ্যই বন্ধ করা উচিত। শুধুমাত্র পশ্চিমবঙ্গে করা হচ্ছে আর দফায় ভোট কিন্তু অন্যদিকে কেরালা এবং পুদুচেরি অঞ্চলে হচ্ছে শুধু মাত্র এক দফা এবং আসামে হচ্ছে তিন দফায় ভোট সেই রকম জায়গায় বাংলায় ৮ দফা ভোট হওয়া মানে বিশাল ব্যাপার এবং যা নিয়েই মামলাকারী প্রশ্ন করেছেন এবং তার মতে এই ধরণের সিদ্ধান্ত অবশ্যই সাম্যের বিরুদ্ধে যাওয়া হচ্ছে। অবশেষে এই পিটিশন আইনজীবী মনোহর লাল শর্মা খারিজ করে দেন।