ভোটের আগে পেট্রোল এবং ডিজেলের দাম কমালো রাজ্য সরকার

8
ভোটের আগে পেট্রোল এবং ডিজেলের দাম কমালো রাজ্য সরকার

বিগত প্রায় বেশ কয়েক দিন ধরেই দেশের অন্যান্য রাজ্যের মতো এই রাজ্যেও পেট্রোল ডিজেলের দর সেঞ্চুরি হাঁকানোর পথে এগোচ্ছে। জ্বালানি তেলের দাম বৃদ্ধি নিয়ে রীতিমতো কেন্দ্র-রাজ্য তরজা শুরু হয়েছে বাংলায়। তবে ভোট বড় বালাই। তাই একুশের বিধানসভা নির্বাচনের আগেই রাজ্যের তরফ থেকে যতখানি সম্ভব পেট্রোল-ডিজেলের বর্ধিত দাম নিয়ন্ত্রণের প্রচেষ্টা চালানো হলো।

রাজ্যের অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্র সম্প্রতি জানালেন, গতকাল রবিবার মধ্যরাত থেকেই পেট্রল এবং ডিজেলের উপর থেকে রাজ্যের চাপানো সেসের ১ টাকা লাঘব করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য সরকার। যার ফলে আজ রাত থেকেই এই রাজ্যে পেট্রোল-ডিজেলের দাম এক টাকা করে কমে যাবে। বিধানসভা নির্বাচনের আগে রাজ্যের এই সিদ্ধান্ত রাজনৈতিক দৃষ্টিভঙ্গিতে বেশ তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

প্রসঙ্গত, বিগত বেশ কয়েক মাস ধরেই পেট্রোপণ্যের মূল্য বৃদ্ধির দরুণ নাজেহাল দেশবাসী। এদিকে সামনেই বাংলা-সহ চার রাজ‌্য ও একটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের বিধানসভা নির্বাচন। তাই নির্বাচনের পূর্বে পেট্রোপণ্যের মূল্য বৃদ্ধি নিয়ে কেন্দ্রের কাছে আম-জনতার প্রত্যাশাও প্রচুর। কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামনও সম্প্রতি এই বিষয়ে আমজনতাকে আশ্বস্ত করার চেষ্টা করেছেন।

শনিবার কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী বলেন, পেট্রোপণ্যের দাম যে হারে বাড়ছে তা অত্যন্ত উদ্বেগজনক। পেট্রোপণ্যের দাম কমানোর জন্য এই মুহূর্তে রাজ্য এবং কেন্দ্রীয় সরকারকে একসঙ্গে বসে সিদ্ধান্ত নেওয়া উচিত। এর ফলে পেট্রোপণ্যের দাম নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হবে। প্রসঙ্গত, জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধিতে এমনিতেই চাপে রয়েছে বিজেপি। ভোটের আগে তাই পেট্রোপণ্যের সেসের উপর ছাড় দিয়ে বিজেপিকে আরো চাপে ফেলে দিলেন মুখ্যমন্ত্রী।