আগামী শুক্রবার থেকে শুরু হচ্ছে দুয়ারে রেশনের পাইলট প্রজেক্ট

28
আগামী শুক্রবার থেকে শুরু হচ্ছে দুয়ারে রেশনের পাইলট প্রজেক্ট

আরো একবার বড়োসড়ো ঘোষণা করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ভোটে জেতার পর বাড়ির দোরগোড়ায় পৌঁছে দেবে সরকার এমন কথা বলেছিলেন তিনি। সেই কাজের প্রস্তুতি শুরু করে দিয়েছেন এবার তারা। মঙ্গলবার খাদ্য ভবনে বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে যে, শুক্রবার পাইলট প্রজেক্ট হিসেবে শুরু হচ্ছে দুয়ারে রেশনের কাজ। রাজ্যের মোট ২৮ টি রেশন দোকান থেকে রেশন সামগ্রী পৌঁছে দেওয়া হবে প্রত্যেক বাড়িতে। এই বিষয় কতটা সাফল্য পাওয়া গেল তা নিয়ে সোমবার রাজ্য মন্ত্রিসভার বৈঠকে আলোচনা করা হবে।

খাদ্য ভবনে বৈঠকে নতুন খাদ্যমন্ত্রী রথীন ঘোষ না থাকলেও ছিলেন রাজ্যের খাদ্য প্রতিমন্ত্রী জ্যোৎস্না মান্ডি, খাদ্য সচিব পারভেজ সিদ্দিকী। রেশন ডিলার দের সঙ্গে এই প্রকল্প নিয়ে আলোচনা করা হয় এবং সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় যে, পাইলট প্রজেক্ট হিসেবে শুক্রবার খাদ্যমন্ত্রী শুরু হয়ে যাবে দুয়ারে দুয়ারে। মোট বাইশটি জেলার বাইশটি দোকানকে ইতিমধ্যেই চিহ্নিত করা হয়েছে। সেখান থেকেই শুরু হবে কাজ।

বৈঠক শেষে ইন্ডিয়া ফেয়ার প্রাইস অফ ডিলার ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক বিশ্বম্ভর বসে জানিয়েছেন যে, ইতিমধ্যেই মুখ্যমন্ত্রীর কাছে চিঠি পাঠানো হয়েছে। যেহেতু বাড়ি বাড়ি রেশন পৌঁছে দেওয়া খুবই বড় কাজ, তাই সব রকম প্রস্তুতির জন্য খানিকটা সময় চেয়ে নেওয়া হয়েছে। কিভাবে এই কাজ করতে হবে সেটাও বুঝে নিতে হবে। প্রকল্পের কাজ পুরোদমে শুরু হলে প্রথম ১৫ দিন গ্রাহকরা রেশন দোকানে এসে খাদ্য সামগ্রী নিয়ে যাবেন, পরের ১৫ দিন রেশন দোকানের কর্মীরা তাদের বাড়ি গিয়ে খাদ্য সামগ্রী দিয়ে আসবেন। এই ভাবেই আপাতত চলবে কাজ। তবে আগামী দিনে কতখানি সাফল্য পাবে এই প্রজেক্ট, সেটা সময়ই বলতে পারবে।