চাঁদের কক্ষপথের ঘটছে পরিবর্তন! পৃথিবীর বুকে ধেয়ে আসছে বিপদ

20
চাঁদের কক্ষপথের ঘটছে পরিবর্তন! পৃথিবীর বুকে ধেয়ে আসছে বিপদ

বিগত কয়েক দিন ধরেই সারা পৃথিবী জুড়ে প্রাকৃতিক দুর্যোগ বাড়ছে। এর সঠিক ব্যাখ্যা খুঁজতে উঠেপড়ে লেগেছিলেন নাসার বিজ্ঞানীরা। এবার তাদের হাতে উঠে এলো চাঞ্চল্যকর তথ্য। নাসার বিজ্ঞানীরা জানাচ্ছেন আগামী কয়েকদিনে চাঁদের কক্ষপথের পরিবর্তন আসতে চলেছে। আর যদি চাঁদ তার কক্ষপথের বিন্দুমাত্র পরিবর্তন আনে তাহলেই সমূহ বিপদ অপেক্ষা করে রয়েছে পৃথিবীর জন্য।

সমুদ্রের জোয়ার-ভাটার উপর চাঁদের নিয়ন্ত্রণ থাকে। যে কারণে চাঁদের কক্ষপথে পরিবর্তন ভবিষ্যতে পৃথিবীতে বন্যার প্রভাব বাড়াবে বলে আশঙ্কা করছেন বিজ্ঞানীরা। ২০৩০ সালে যাদের কক্ষপথের পরিবর্তন হবে বলে জানিয়েছেন নাসার বিজ্ঞানীরা। আর যদি তা হয় তাহলে সারা পৃথিবী জুড়ে বন্যার সম্ভাবনা দেখা দেবে। ভয়ঙ্কর সেই বন্যায় প্রাণহানির সংখ্যাটাও হবে ভীতিপ্রদ। বন্যায় সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হবে আমেরিকা, এমনটা উল্লেখ করা হয়েছে ওই গবেষণাপত্রে।

চাঁদের কক্ষপথে এ ধরনের পরিবর্তন সম্পন্ন হতে সাধারণত সময় লাগে ১৮ বছর ৬ মাস। সেই অনুযায়ী আগামী ২০৩০ সালে আবার চাঁদের কক্ষপথে বেশ কিছু পরিবর্তন আসবে। চাঁদ যখন তার উপবৃত্তাকার কক্ষপথ তৈরি করে, তখন স্বাভাবিকভাবেই তার গতিবেগের পরিবর্তন হয়ে থাকে। যার জন্য আলোর দিক সম্পর্কিত কোন পরিবর্তিত হয়। যদি এমনটা হয় তাহলে এই ভয়ঙ্কর প্রলয় নেমে আসবে পৃথিবীর বুকে।

বিশেষজ্ঞরা জানাচ্ছেন, এই ধরনের পরিবর্তন হলে এক মাসে প্রায় ১০ থেকে ১৫ বার বন্যা আসতে পারে। যার ফলে স্বাভাবিকভাবেই জনজীবন বিপর্যস্ত হবে। আমেরিকায় তটভূমি এলাকায় বেশি হওয়ায় ক্ষতির সম্ভাবনা রয়েছে। যদি এখনই উপযুক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ না করা হয় তাহলে আগামী দিনে সমূহ বিপদ অপেক্ষা করে রয়েছে বলে জানিয়েছেন নাসার বিজ্ঞানীরা।