মানুষকে বাড়িতেই পরিষেবা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিলেন মালদার এই চিকিৎসকরা

18
মানুষকে বাড়িতেই পরিষেবা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিলেন মালদার এই চিকিৎসকরা

করোনার লাগামছাড়া সংক্রমণের জেরে ধুঁকছে উত্তরবঙ্গ। উত্তরবঙ্গের মালদায় সম্প্রতি নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। বিগত কয়েকদিন ধরে মালদার করোনা আক্রান্তের গ্রাফ ক্রমশ ঊর্ধ্বমুখী। বর্তমান পরিস্থিতিতে বিগত ২৪ ঘন্টায় ৭২৯ জন মানুষ নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন এমনই রিপোর্ট পাওয়া গিয়েছে। এমন পরিস্থিতির মোকাবিলা করবে কীভাবে মালদা?

মালদা সরকারি হাসপাতালগুলিতে বেডের আকাল দেখা দিয়েছে। এমন ভয়াবহ কঠিন পরিস্থিতিতে জেলাবাসীর পাশে দাঁড়াতে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন কয়েক জন চিকিৎসক। সরকারি হাসপাতালের কয়েকজন চিকিৎসকের সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ করে করোনাকালে যাবতীয় চিকিৎসা ঘরে বসেই পেতে পারেন সাধারণ মানুষ।

মালদা জেলার বাসিন্দাদের সাহায্য করার উদ্দেশ্যে যারা নিজেদের মোবাইল নম্বর প্রদান করেছেন তারা হলেন-

১. চিকিৎসক শ্বাশ্বত ঘোষ- ৮৩৩৪৮৮৬৫৯০
২. চিকিৎসক অনিমেশ মণ্ডল- ৯৭৪৮৯২২৯৯৭
৩. চিকিৎসক নির্মল হক- ৯৬১৪৫৯১৬৭৭
৪. চিকিৎসক অজয় আগরওয়াল- ৯৪৭৫৩৭৭৭০৭
৫.চিকিৎসক দীপঙ্কর কাজি- ৯৮৩১২৬৪৪৮৫
৬. চিকিৎসক পীযূষকান্তি মণ্ডল- ৯৪৩৩১১৬৯৬৮
৭. চিকিৎসক আব্দুল মহম্মদ হান্নান- ৯৪৭৪১৭৪৭১৭
৮. চিকিৎসক বিক্রমকুমার সাহা- ৯৪৩৩২৩০৮৮৮
৯. চিকিৎসক অভিজিৎ সাহা- ৯৮৮৩৯২৬৮৮৪

মালদা জেলার বাসিন্দারা এই নম্বরে যোগাযোগ করলে বাড়িতে বসেই ২৪ ঘণ্টা চিকিৎসকদের পরিসেবা এবং পরামর্শ পাবেন। বর্তমানে অনেকেকই হোম আইসোলেশনে থাকতে হচ্ছে। অনেকেই হাসপাতালে ভর্তি হতে পারছেন না বেডের অভাবে। এমতাবস্থায় সাধারণ মানুষকে বাড়িতেই পরিষেবা দেওয়ার জন্য মঙ্গলবার থেকে চিকিৎসকরা ফোনের মাধ্যমে চিকিৎসার পরিসেবা দেওয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করলেন।