ডিজেল চালিত পাম্পকে এল পিজি গ্যাসের মাধ্যমে চালিয়ে তাক লাগিয়ে দিলেন এই কৃষক

5
ডিজেল চালিত পাম্পকে এল পিজি গ্যাসের মাধ্যমে চালিয়ে তাক লাগিয়ে দিলেন এই কৃষক

একজন ভারতীয়ের কাছে কোনো না কোনো কাজের কোনো না কোনো উপায় থাকেই। আর সেই উপায় দেখে সবাই অবাক হয়ে যায়। কারণ এবার এটার প্রমাণ পাওয়া গেলো। আসলে একজন কৃষক জল দিতে পারছে না ডিজেলর দামের কারণে। তার যে পামসেট মেশিন আছে, সেটা আবার চলে না ডিজেল ছাড়া, কিন্তু জল না দিলে ফসল ফলবে কিভাবে? এটা নিয়েই উঠছে প্রশ্ন?

কিন্তু এই প্রশ্নের উত্তর যে কৃষকের কাছে ছিলই সেটা কে জানত বলুন। রান্নার গ্যাস দিয়েই এবার তার পামসেট চালালেন তিনি, আর এখানেই ঘটে গেলো মুশকিল আসান। ঘটনাটি ঘটেছে কানপুরে, সেখানে শিবরাজ পুর মহকুমায় নদিহা বুজুর্গু গ্রামের বাসিন্দা। দশম শ্রেণী পর্যন্ত পড়াশুনা করে পড়াশোনার পাঠ চুকিয়ে সে কৃষিকাজের সাথে যুক্ত হয়েছেন। এবার সেটা নিয়েই উঠছে প্রশ্ন, সত্যি তার বুধি আছে বটে। তাহলে এখন সবাই ভাবছে হয়ত তিনি যদি পড়াশোনা করতেন তাহলে অনেক দূর এগোতে পারতেন।

খেতে জল দেওয়ার জন্য ডিজেল চালিত পাম্পকে এল পিজি গ্যাসের মাধ্যমে চালিয়ে তাক লাগিয়ে দিল সবাইকে। এর আগে এমন কান্ড কেউ দেখে নি, কারণ এল পিজি লাগিয়ে পাম্প চালানো, সত্যি অবিশ্বাস্য ব্যাপার। তবে হ্যা প্রথমেই যে তিনি সফল হয়েছেন, সেটা কিন্তু না। তিনি অনেক বার চেষ্টা করেই সাফল্যের মুখ দেখেছে ও খেতে জল দিয়েছে। এই নিয়ে তাকে প্রশ্ন করা হলে তিনি জানিয়েছেন আসলে ৪ কেজির একটি এল পিজি সিলিন্ডার দিয়ে ১০ ঘন্টার মতো পাম্প\ টিউবওয়েল\ পামসেট মেশিন চালানো গেছে।

আসলে এই পাম্প প্রথমে চালু করতে কিন্তু ১ লিটারের মতো ডিজেলের দরকার হয়, কিন্তু এর পরেই গ্যাস দিয়ে চালানো যায় এই পাম্পকে। যার ফলে ঘন্টায় ১৭.৬০ টাকার মতো খরচ হয়। যা শুনে কৃষকেরা অনেকটাই খুশি হয়েছে। তবে হ্যা তিনি এই ভয়ও পাচ্ছেন, যে সরকারী এল পি জি গ্যাস রান্না ছাড়া অন্য কাজে ব্যবহার দন্ডনীয় অপরাধ। তবে হ্যা তিনি এর পরে আর এমন কাজ করবেন না বলেই জানিয়েছেন। কারণ তিনি স্বর্ন ব্যবসায়ীর কাছ থেকে টাকা ধার নিয়েছিল সেটা পূরণ করার জন্য ক্ষেতে ফসল ফলানোটা খুবই দরকার।