বাংলাদেশের ঘটনা অত্যন্ত দুঃখজনক! অত্যন্ত চিন্তার বিষয়ঃ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী নিশীথ প্রামাণিক

9
বাংলাদেশের ঘটনা অত্যন্ত দুঃখজনক! অত্যন্ত চিন্তার বিষয়ঃ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী নিশীথ প্রামাণিক

মঙ্গলবার কোচবিহার থেকে কলকাতা গেলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী নিশীথ প্রামাণিক। এদিন সকাল ১১টা ২৯ নাগাদ বাগডোগরা বিমানবন্দরে পৌছান। এরপর বাগডোগরা বিমানবন্দরে সাংবাদিকদের মুখোমুখি তিনি বলেন যে বাংলাদেশের ঘটনা অত্যন্ত দুঃখজনক। এই ধরনের ঘটনা মেনে নেওয়া যায় না।

দেখুন সাধারণ মানুষের উপর যখন যে কোন সমস্যা নেমে আসে সেটা প্রাকৃতিক দুর্যোগ হোক, কোন দুর্ঘটনাই হোক অথবা আমরা যেইটা দেখছি আজকে বাংলাদেশ উতপ্ত হয়ে উঠেছে। সেখানে একটা সম্প্রদায়ের উপর উৎসবের মরশুমে যে ধরনের আক্রামণ চলেছে। এইটা অত্যন্ত চিন্তার বিষয়। এবং আমরা এই বিষয় নিয়ে অত্যন্ত চিন্তিত। আজকে যে কোন মানুষের উপর যে কোন ধর্মের উপরে কোন রকম আক্রমণ নেমে আসে সেই বিষয়ে ভারতীয় জনতা পার্টি কথা বলবে।

দিনহাটায় প্রচারে গিয়ে বিজেপি প্রার্থী অশোক মন্ডলের উপর আক্রমণ হয়েছে সেই প্রসঙ্গে তিনি বলেন যে অশোক মন্ডল বাবু ভারতীয় জনতা পার্টির প্রার্থী যখন তার উপরে আক্রমণ নেমে আসছে ফলে সাধারণ মানুষ কতটা সুস্থ ভাবে ভোট দিতে পারবে ছোট একটা ঘটনা থেকেই আমরা দেখতে পাচ্ছি। আর আমরা ভোট পরবর্তী সময়ে দেখেছি সাধারণ মানুষের যেভাবে গনতান্ত্রিক অধিকার ছিনিয়ে নিয়েছে। ঠিক এক ভাবে সাধারণ মানুষের বাড়ি ঘর ভেঙে দেওয়া,সাধারণ মানুষের কণ্ঠ রোধ করা হয়েছে।

সংবাদ মাধ্যমের কষ্ট করা হয়েছে। এবং এই বারের নির্বাচনে দেখা যাচ্ছে যিনি প্রার্থী তার উপর প্রাণঘাতী আক্রামণ হয়েছে। তাকে প্রচারে বাধা দেওয়া হচ্ছে। যদি নির্বাচন সুষ্ঠ ভাবে হত আমরা মনে হয় অন্তত প্রচারের ক্ষেত্রে প্রার্থীকে বাধা দেওয়া তার উপর আক্রমণ করা এইটা কোন সুষ্ঠ সভ্য রাজনৈতিক দলের উচিত নয়। এর পাশাপাশি তিনি আরও বলেন যে আমরা সীমান্ত সুরক্ষাকে সুনিশ্চিত করার জন্য এবং একে বারে অন্তরবর্তী সুরক্ষাকে ঢেলে সাজানোর জন্য উত্তরবঙ্গে চিকেনগেক রয়েছে।

সমগ্র বাংলাজুড়ে সুবিসস্তিত ইন্দো বাংলাদেশ বর্ডার সেটাকে সুরক্ষিত করার জন্য আপনারা জানেন যে উত্তরবঙ্গের খুব কাছেই নেপাল বর্ডার, চায়না বর্ডার, ভুটান রয়েছে। আমরা অন্তরবর্তী সুরক্ষাকে ঢেলে সাজানোর জন্য এই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। এইটা শুধু পশ্চিমবঙ্গের জন্য আসাম থেকে শুরু করে উত্তর পূর্ব যে সমস্ত রাজ্যগুলো রয়েছে প্রায় প্রত্যেকটিই রাজ্যেই। সেই সঙ্গে সঙ্গে গুজরাট রাজস্থানের মতো রাজ্যেও বিএসএফের যে জুরিডিকশন বৃদ্ধি করা হয়েছে।

এইটা নিয়ে তৃণমূলের নেতারা কেন ভয় পাচ্ছে জানিনা। এইটা সম্পুর্ন দেশের অন্তরবর্তী ও যে সমস্ত আন্তজার্তিক সীমান্ত রয়েছে সেইগুলো সুরক্ষিত করার জন্য করা হচ্ছে। অযথা তৃণমূল কংগ্রেস কেন ভয় পাচ্ছে এটাই অবাক হবার বিষয়। এরপর তিনি বিমানে করে কলকাতার উদ্দেশ্যে রওনা দেন।