ফসলের ন্যূনতম সহায়ক মূল্য বাড়ালো কেন্দ্র সরকার! কুইন্টাল প্রতি গম ১৯৪০ টাকা

8
ফসলের ন্যূনতম সহায়ক মূল্য বাড়ালো কেন্দ্র সরকার! কুইন্টাল প্রতি গম ১৯৪০ টাকা

দীর্ঘ বেশ কয়েক মাস ব্যাপী দিল্লির সীমান্তে মোদি সরকারের বিরুদ্ধে অবস্থানরত কৃষকেরা। মোদি সরকারের বিতর্কিত কৃষি আইন রদ না হওয়া পর্যন্ত তারা তাদের অবস্থান বিক্ষোভ চালিয়ে যাবেন বলে জানিয়েছেন। এমতাবস্থায় কৃষকদের বিক্ষোভের অন্যতম প্রধান বিষয়বস্তু এমএসপি তথা ন্যূনতম সহায়ক মূল্য বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে কেন্দ্রীয় সরকার।

কৃষকদের সুবিধার্থেই কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে এই সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে বলে জানানো হয়েছে। এবার থেকে খারিফ শস্যের উপর এমএসপি বাড়ানো হয়েছে। বুধবার কুইন্টাল প্রতি ৭২ টাকা করে এমএসপি বাড়ছে বলে জানানো হয়েছে। সেই অনুসারে চলতি অর্থবর্ষে কুইন্টাল প্রতি গমের এমএসপি হবে ১৯৪০ টাকা। বুধবার মন্ত্রিসভার বৈঠকের পর কৃষিমন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমার সাংবাদিকদের সামনে জানালেন যে, এমএসপি আছে, এমএসপি বর্তমানে বাড়ানো হলো। ভবিষ্যতেও বাড়বে।

এদিন মন্ত্রিসভার বৈঠকে খারিফ শস্যের ন্যূনতম সহায়ক মূল্য ৫০ শতাংশ থেকে শুরু করে সর্বোচ্চ ৬২ শতাংশ পর্যন্ত বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানালেন কৃষিমন্ত্রী। গমের পাশাপাশি বাজরার ক্ষেত্রে এমএসপি বাড়িয়ে প্রতি কুইন্টাল ২২৫০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, চলতি অর্থবছরে সারা দেশের প্রায় ৫৬.৫০ লক্ষ হেক্টর জমি জুড়ে গ্রীষ্মকালীন খারিফ শস্য চাষ করা হয়েছে।

সাধারণত শীতকালে রবি শস্য চাষের পর সেই শস্য তোলা হয়ে গেলে খারিফ শস্যের চাষ শুরু করেন কৃষকেরা। আবার জুনমাসে দক্ষিণ ও পশ্চিমের রাজ্যগুলিতে বর্ষা শুরু হয়ে গেলেও এই শস্য চাষ করা যায়। শস্যের উপর ন্যূনতম সহায়ক মূল্য বৃদ্ধি পাওয়াতে কৃষকদের দাবি কিছুটা পূরণ করা যাবে বলে আশা রাখছে কেন্দ্র।