বিভিন্ন রাজ্যে ভ্যাকসিন না পাঠানোর অভিযোগের বিরুদ্ধে ভ্যাকসিন প্রেরণ সম্পর্কিত তথ্য পেশ করল কেন্দ্র

14
বিভিন্ন রাজ্যে ভ্যাকসিন না পাঠানোর অভিযোগের বিরুদ্ধে ভ্যাকসিন প্রেরণ সম্পর্কিত তথ্য পেশ করল কেন্দ্র

বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে দেশজুড়ে যেমন একদিকে হাসপাতালের বেড এবং অক্সিজেনের অভাব দেখা দিয়েছে, অপরদিকে তেমনি দেশের বিভিন্ন রাজ্য ভ্যাকসিনের অভাব নিয়ে মুখ খুলছে। বহু রাজ্যই কেন্দ্রের বিরুদ্ধে ভ্যাকসিন না পাঠানোর অভিযোগ তুলছে। রাজ্যগুলির এমন অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে কেন্দ্রীয় সরকার এবার করোনা ভ্যাকসিন প্রেরণ সম্পর্কিত তথ্য পেশ করল।

কেন্দ্রে তরফ থেকে প্রকাশিত রিপোর্ট অনুসারে, রাজ্যগুলির কাছে ইতিমধ্যেই প্রায় এক কোটি ডোজের ভ্যাকসিন রয়েছে। এছাড়াও আগামী দুই থেকে তিনদিনের মধ্যেই ২০ লক্ষ্য ভ্যাকসিন প্রদান করা হবে রাজ্যগুলিকে। বৃহস্পতিবার কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে একটি লিখিত বিবৃতি প্রকাশ করে এমনটাই জানিয়েছে কেন্দ্র।

কেন্দ্রের তরফ থেকে প্রকাশিত ওই রিপোর্টে কেন্দ্রীয় সরকার জানিয়েছে, বর্তমান কোভিড পরিস্থিতির মোকাবিলায় পরীক্ষা, চিহ্নিতকরণ, চিকিৎসা, করোনাবিধি অনুসরণ ও টিকাকরণের পন্থা অনুসরণ করা হচ্ছে। আগামী ১লা মে থেকে দেশজুড়ে তৃতীয় ধাপের টিকাকরণ প্রক্রিয়া শুরু হতে চলেছে বলে জানিয়েছে কেন্দ্র সরকার। এই পর্যায়ে ১৮ বছরের উর্ধ্বের নাগরিকদের টিকা প্রদান করা হবে।

কো-উইন অ্যাপ কিংবা আরোগ্য সেতু অ্যাপের মাধ্যমে করোনা টিকা নেওয়ার জন্য রেজিস্ট্রেশন করতে পারেন ইচ্ছুক ব্যক্তিরা। কেন্দ্র লিখিত বিবৃতি দিয়ে জানিয়েছে এখনো পর্যন্ত মোট ১৬.১৬ কোটি ভ্যাকসিনের ডোজ় বিনামূল্যে দেশের বিভিন্ন রাজ্যে সরবরাহ করা হয়েছে। কেন্দ্রের তরফ থেকে এও জানানো হয়েছে যে, আগামী তিনদিনের মধ্যেই রাজ্যগুলিকে অতিরিক্ত ২০ লক্ষ ৪৮ হাজার ৮৯০টি ভ্যাকসিন সরবরাহ করা হবে।