মাধ্যমিক এবং উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা বাতিল করার সিদ্ধান্ত নিলো সিবিএসই বোর্ড কর্তৃপক্ষ

8
মাধ্যমিক এবং উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা বাতিল করার সিদ্ধান্ত নিলো সিবিএসই বোর্ড কর্তৃপক্ষ

অবশেষে সিবিএসসি বোর্ডের দ্বাদশ শ্রেণীর পরীক্ষা বাতিল করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করল কেন্দ্রীয় সরকার। মঙ্গলবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে একটি উচ্চ পর্যায়ের বৈঠকের আয়োজন করে এমন সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে শিক্ষা দপ্তর। পরীক্ষা বাতিল হলে অবশ্য পরীক্ষার্থীদের মূল্যায়ন কিভাবে হবে সেই নিয়ে অবশ্য এখনো কোনো চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়নি। তবে আপাতত পরীক্ষা বাতিল করার সিদ্ধান্তই কার্যকর করছে কেন্দ্র।

প্রসঙ্গত করোনাকালে শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য কোনোভাবেই ঝুঁকির মুখে ফেলতে চায়না সিবিএসসি বোর্ড। তাই দশম শ্রেণির পরীক্ষার মতো দ্বাদশ শ্রেণীর পরীক্ষা বাতিল করা হচ্ছে। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, চলতি বছরের প্রথম ভাগ থেকেই দেশজুড়ে করোনার প্রকোপ বৃদ্ধি পেতে শুরু করেছে। সংক্রমণ এড়াতে দীর্ঘ প্রায় দেড় বছরেরও বেশি সময় ধরে স্কুল কলেজের পড়াশোনা বন্ধ। অনলাইনে আপাতত ক্লাস চলছে।

দীর্ঘ দেড় বছরে অনলাইনেই পরীক্ষা নেওয়া হয়েছে। কবে এই পরিস্থিতির উন্নয়ন হবে তা এখনও জানা সম্ভব নয়। করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে আবার অনিশ্চয়তা দেখা দিয়েছে। করোনা আক্রান্তের সংখ্যাটা আবারো বৃদ্ধি পাচ্ছে। পরিস্থিতি খতিয়ে দেখে তাই সিবিএসই বোর্ড কর্তৃপক্ষ মাধ্যমিক এবং উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা বাতিল করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করলো। উল্লেখ্য পশ্চিমবঙ্গেও মাধ্যমিক এবং উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা নিয়ে টানাপোড়েন দেখা দিয়েছে।

পশ্চিমবঙ্গের শিক্ষা দপ্তরের তরফ থেকে প্রথমে পয়লা জুন থেকে মাধ্যমিক এবং ১৫ই জুন থেকে উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। তবে পরবর্তীকালে করোনার প্রকোপ বৃদ্ধি পাওয়াতে লকডাউনের জেরে আবার পরীক্ষা পিছিয়ে যায়। রাজ্য শিক্ষা দপ্তরের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, আগামী জুলাই মাসে উচ্চ মাধ্যমিক এবং আগস্ট মাসে মাধ্যমিক পরীক্ষা নেওয়া হবে।