পিএম কেয়ার ফান্ডের অডিট করার এক্তিয়ার নেই ক্যাগের

54
পিএম কেয়ার ফান্ডের অডিট করার এক্তিয়ার নেই ক্যাগের

এবার ক্যাগের সূত্রে একটি খবর সামনে এসেছে , জানা যাচ্ছে পিএম তহবিলের মধ্যে তারা কোনো ভাবেই হস্তক্ষেপ করতে পারবে না। এই তহবিল করোনা মোকাবিলার জন্য তৈরী করা হয়েছে। ২৮ মার্চ প্রধানমন্ত্রীর তদারকিতে এই পি কেয়ার তহবিল গঠন করা হয়েছে। এর মধ্যে সবাই আর্থিক ভাবে সাহায্য করেছে। এই যে ট্রাস্টি গঠন করা হয়েছে তার সাথে কেন্দ্রীয় মন্ত্রীরা যুক্ত, কারণ তারা এর সদস্য। এইসব নিয়ে তাই ক্যাগ পরিষ্কার ভাবে জানিয়েছে, এই তহবিলে সব দিক থেকে আর্থিক সাহায্য করেছে, তাই এটা আমাদের এক্তিয়ারের বাইরে।

আমরা ট্রাস্টের অনুমতি ছাড়া সেখানে হাত দিতে পারব না। এদিকে সেই ট্রাস্ট নির্বাচন করবে কোন স্বাধীন দলকে দিয়ে অডিট করার। তাই এখন কোনোমতেই সম্ভব না। এই পিএম কেয়ার ফান্ডে দেশের বিভিন্ন শিল্পপতি, অভিনেতা , অভিনেত্রী, সাধারণ মানুষ সবাই অনুদান দিতে শুরু করে। আর তারফলেই এই পিএম কেয়ার দেশের স্বার্থে লড়াই করার সাহস যুগিয়েছে। তাই এটাতে অনুমতি ছাড়া ক্যাগ কখনই হাত দিতে পারবে না।

এবার এই তহবিলে সবাইকে আর্থিক সাহায্য করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ক্যাবিনেট সচীব, আধিকারিক, সহ সচীব, যুগ্ম সচীব, সরকারী কর্মীবৃন্দ, সবাইকে আর্থিক সাহায্যের জন্য বলা হয়েছে। কিন্তু আবার এই নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে বিরোধীরা। তারা বলেছে ১৯৪৮ সালে প্রধানমন্ত্রীর জাতীয় তহবিল গঠন করা হয়েছে কিন্তু ফের নতুন করে কেনো তহবিল গঠন করা হল? আসলে কিছুদিন আগেই হুয়ের যে তহবিল রয়েছে ,সেটার ৪ বছরের জন্য অডিট করেছে ক্যাগ।

এবার তেমন ভাবেই পি এম কেয়ার ফান্ড অডিট করার কথা শোনা যাচ্ছে, কারণ সেখানে দেশের সমস্ত বিশেষ ব্যক্তি আর্থিক সাহায্য করেছে, খেলোয়াড়, অভিনেতা অভিনেত্রী, শিল্প পতি সবাই। তবে ট্রাস্ট না চাইলে ক্যাগ অডিট করতে যে পারবে না সেটা জানিয়েছে তারা।।