প্রায় ২৩ ফুট লম্বা মুন্ডু বিহীন অদ্ভুত প্রাণীর মরদেহ ভেসে এল সমুদ্র তীরে

11
প্রায় ২৩ ফুট লম্বা মুন্ডু বিহীন অদ্ভুত প্রাণীর মরদেহ ভেসে এল সমুদ্র তীরে

বিশাল এই পৃথিবী নিজের গর্ভে কতই না অদ্ভুত রহস্য লুকিয়ে রেখেছে। এই রহস্যের সবটা কিনারা করতে এখনো ব্যর্থ বিজ্ঞানীরা। আজও প্রায় প্রতিদিনই বিশ্বের কোনো না কোনো প্রান্ত থেকে মানুষের জন্য নতুন চমক অপেক্ষা করে থাকে। পৃথিবীর বিশাল সম্পদের ভাণ্ডার হলো সমুদ্র। গভীর সমুদ্রে কত অদ্ভুত প্রাণী, উদ্ভিদ এবং অন্যান্য উপাদান আজও মানুষের দৃষ্টির অগোচরেই রয়ে গিয়েছে।

পৃথিবীর রহস্যের অন্যতম আঁতুড়ঘর সেই সমুদ্রে ভেসে এলো এক অদ্ভুত প্রাণীর মরদেহ। ইউনাইটেড কিংডমের ওয়েলসের পেমব্রুকশায়ারের ব্রড হাভেন সাউথ বিচে ভেসে এসেছে এক অতিকায় প্রাণীর মরদেহ। এই প্রাণীটির শিরদাঁড়াটিই অন্তত ২৩ ফুট লম্বা বলে জানানো হয়েছে। অদ্ভুত বিষয় হলো প্রাণীটি মুন্ডু বিহীন অর্থাৎ মৃত ওই অতিকায় প্রাণীটির শুধু ধড়টুকুই উদ্ধার করা সম্ভব হয়েছে।

এই সামুদ্রিক জীবটিকে কেন্দ্র করে স্বভাবতই বৈজ্ঞানিক মহলে জোর জল্পনা শুরু হয়েছে। বিশেষত প্রাণীটি কোন প্রজাতির প্রাণী তা এখনও নির্ধারণ করা সম্ভব হয়ে ওঠেনি। প্রাণীটির শরীরে মুন্ডু কেন নেই, আপাতত এই প্রশ্নই ভাবাচ্ছে বিশেষজ্ঞদের। অনেকের মতে অন্য প্রাণীর আক্রমণের কারণেই তার দেহ থেকে মুন্ডু আলাদা হয়ে গিয়েছে এবং তাতেই তার মৃত্যু হয়েছে।

আবার একদল বিশেষজ্ঞের দাবি প্রাণীটির মরদেহ দীর্ঘ বেশ কয়েকদিন ধরেই সমুদ্রে ভাসমান অবস্থায় ছিল। যার ফলে এতে পচন ধরে গিয়েছে। যে কারণেই সম্ভবত মাথাটি দেহ থেকে আলাদা হয়ে গিয়েছে। এই মৃত প্রাণীটি কোনো হাঙ্গরের মৃতদেহ বলেই মনে করছেন প্রাণী বিশেষজ্ঞরা। আপাতত মৃত জীবটিকে নিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষা চালানো হচ্ছে।