নদিয়ায় এক বিজেপি কর্মীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার ঘিরে চাঞ্চল্য এলাকায়, অভিযোগ তৃণমূলের দিকে

7
নদিয়ায় এক বিজেপি কর্মীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার ঘিরে চাঞ্চল্য এলাকায়, অভিযোগ তৃণমূলের দিকে

আবারও রাজ্যে বিজেপি কর্মীর মৃত্যু ঘিরে রাজনৈতিক মহলে জোর অশান্তি ছড়ালো। নদিয়ার কল্যাণী থানার গয়েশপুর এক বিজেপি কর্মীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে স্বভাবতই আবারো তৃণমূলের দিকেই অভিযোগের আঙ্গুল তুলেছে বিজেপি। বিজেপির দাবি, রাজনৈতিক কারণেই ওই বিজেপি কর্মীরকে খুন করে তার দেহ ঝুলিয়ে দিয়েছে তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা।

রবিবার সকালেই গয়েশপুর এলাকার একটি আম বাগান থেকে ওই বিজেপি কর্মীর ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। মৃত ওই ব্যক্তির নাম বিজয় শীল। পেশায় তিনি রান্নার গ্যাসের সিলিন্ডার সরবরাহকারী সংস্থায় কাজ করতেন। বয়স ছিল ৩৪ বছর। মৃত ব্যক্তিকে বিজেপি কর্মী বলেই দাবি করেছেন বিজেপি কর্মী সমর্থকরা। মৃত ব্যক্তির পরিবারের অভিযোগ, এর আগেও তাকে বেশ কয়েকবার হুমকি পেতে হয়েছে।

মৃত ব্যক্তির স্ত্রী দাবি করেছেন, উনি আত্মহত্যা করেননি। তাকে খুন করে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছে। তবে এর পেছনে রাজনৈতিক যোগ আছে কিনা সে বিষয়ে নিশ্চিত ভাবে কিছু জানাতে পারেননি তিনি। এদিকে গয়েশপুরের তৃণমূল সভাপতি আবার মৃত ব্যক্তিকে তৃণমূলীয় দলের কর্মী হিসেবেই দাবি করেছেন। তবে, এই মৃত্যুকে পুরোপুরি স্বাভাবিক বলেই দাবি করেছেন তিনি।

তৃণমূলের দাবি, ওই ব্যক্তি আত্মহত্যাই করেছেন। শাসক দলের সাংসদ আবিররঞ্জন বিশ্বাসের অভিযোগ, রাজ্য যেকোনো স্বাভাবিক মৃত্যুকেই অস্বাভাবিক তকমা দিয়ে তৃণমূলের বিরুদ্ধে রাজনীতি করছে বিজেপি। মৃত ব্যক্তির দেহ উদ্ধার করে ইতিমধ্যেই ময়নাতদন্তের জন্য পাঠিয়েছে পুলিশ। ওই ব্যক্তির মৃত্যুর রহস্য উদঘাটনে সঠিক তদন্তের দাবি করছে বিজেপি।