দেখে নিন বাস্তুতন্ত্র মতে সিড়ির তলায় কি রাখা একেবারেই উচিৎ নয়

40
দেখে নিন বাস্তুতন্ত্র মতে সিড়ির তলায় কি রাখা একেবারেই উচিৎ নয়

প্রত্যেক বাড়িতে সুখ এবং শান্তি বজায় রাখার জন্য বাস্তু শাস্ত্রের গুরুত্ব অপরিসীম থাকে। বাস্তুশাস্ত্রে বলা থাকে যে, কোথায় কোন জিনিস রাখা উচিত। বাস্তুশাস্ত্র মতে শোবার ঘর থেকে আরম্ভ স্নানের ঘর এমনকি সিড়ির ঘর সমানভাবে গুরুত্বপূর্ণ। অনেকে সিঁড়ির নিচের অংশটি কে স্টোর রুম হিসেবে ব্যবহার করে থাকেন। অনেকেই বাতিল ও প্রয়োজনীয় জিনিস জোর করে রাখেন সিড়ির তলায়। কিন্তু বাস্তু তন্ত্র মতে তা একেবারেই করা উচিত নয়। দেখে নিন সিড়ির তলায় কি রাখা উচিৎ আর কি রাখা  উচিৎ নয়।

অনেকেই সিঁড়ির তলায় ঠাকুর ঘর রাখেন বাড়িতে জায়গার অভাবে। কিন্তু বাস্তু তন্ত্র মতে তা একেবারেই উচিত নয়। এতে ভগবান অত্যন্ত পরিমাণে রুষ্ট হন।

রান্নাঘর রাখা উচিত নয় সিঁড়ির তলায়। যেহেতু সিঁড়ির তলায় নেগেটিভ এনার্জি স্টোর হয়ে থাকে, তাই খাবারের মধ্যে দিয়ে প্রচুর পরিমাণে নেগেটিভ এনার্জি আপনার শরীরে প্রবেশ করতে পারে। তাই সিঁড়ির তলায় রান্নাঘর না করাই ভালো।

অনেকের বাড়িতে হল ঘরের মধ্যে দিয়ে চলে যায় সিড়ি। সিঁড়ির নিচে সোফাসেট পেতে অতিথিদের আপ্যায়ন করে অনেকেই। কিন্তু বাস্তু তন্ত্র মতে তারা একেবারেই উচিত নয়।

সিঁড়ির নিচে অনেকে বাথরুম বানান কিন্তু বাস্তু তন্ত্র মতে সিঁড়ির নিচে বাথরুম থাকলে বাড়ির সদস্যদের উন্নতিতে বাধা সৃষ্টি হয়।

সিঁড়ির নিচে পড়ার ঘর থাকলে বাচ্চার লেখা পড়ার ক্ষতি হতে পারে। সিঁড়ির তলায় যেহেতু নেগেটিভ এনার্জি থাকে, তাই চেয়ার-টেবিল পেতে বাচ্চার পড়ার ব্যবস্থা না করাই ভালো সেখানে।

অনেকে সিঁড়ির তলায় অতিরিক্ত চৌকি পেতে বিছানার ব্যবস্থা করে রাখেন। সিঁড়ির নিচে বেশিদিন শুলে কোন ব্যক্তি অসুস্থ হয়ে যেতে পারেন। তাই সিঁড়ির তলায় বিছানা রাখা উচিত নয়।

সিঁড়ির তলায় রাখা যেতে পারে বাইক গাড়ি অথবা সাইকেল। ঝাঁটা অথবা ডাস্টবিনে রাখা যেতে পারে। কিন্তু ডাস্টবিনে পরিণত করবেন না সিড়ির তলাকে।