দেখে নিন ঘুম থেকে উঠে যে জিনিস গুলি দেখলে জীবনে কু-প্রভাব পড়ে

33
দেখে নিন ঘুম থেকে উঠে যে জিনিস গুলি দেখলে জীবনে কু-প্রভাব পড়ে

বাস্তুশাস্ত্র মতে জরো পদার্থের একটা ইতিবাচক ও নেতিবাচক দিক যেমন রয়েছে। তেমনই একটি ভালো ও খারাপ প্রভাব এর দিক ও রয়েছে। যা আপনার দৃষ্টি পথে এলে আপনার জীবনযাত্রাকে কিছুটা এলোমেলো করে দিতে পারে। খারাপ ঘড়ি অথবা বন্ধ ঘড়ি খারাপ সময় এর আরো ওপর বেশি করে প্রভাব ফেলে। তাই ঘুম থেকে উঠে তা দেখা তো দূরের কথা সেই কারণে বাস্তুমতে এই সব ঘড়ি বাড়িতে রাখাও একদম উচিত না।

ঘুম থেকে উঠে আয়নায় নিজের মুখ দেখা উচিত না। বাস্তুমতে বলা হয় যে সেই সময় নেতিবাচক শক্তিই দর্পণে প্রতিবিম্ব হয় যা আপনার জীবনে কু-প্রভাব ফেলতে পারে। আর তাই ঘুম থেকে উঠে আয়নায় নিজের মুখ দেখা উচিত নয়। যা কিছু নেতিবাচক তা সবসময়ই অন্ধকার থাকে থাকে তাই বলা হয় ঘুম থেকে উঠে অন্ধকারাচ্ছন্ন স্থানে থাকা উচিত নয়। বা অন্য ছায়া দেখা উচিত না। তার কারণ যে ব্যক্তির ছায়া আপনি দেখছেন তার দুর্ভাগ্য আপনাকে গ্রাস করতে পারে।

ভাঙ্গা আসবাবপত্র বাস্তুমতে খারাপ জিনিস। তাই ঘুম থেকে উঠে ভাঙ্গা জিনিসপত্র আসবাবপত্র দেখবেন না এবং ভাঙা জিনিস বাড়িতেও রাখা উচিত নয়। রান্নাঘরের উননের আগুন বাস্তুমতে ঘুম থেকে উঠে দেখা উচিত নয়। কিছুটা সময় পেরিয়ে যাওয়ার পরে রান্না ঘরের আগুন দেখুন। নাহলে আপনার জীবনের চরম দুর্ভোগ ডেকে আনতে পারে।

আগের দিনে তেলচিটে বাসন নেতিবাচক শক্তির আশ্রয় স্থল বলে মনে করে বাস্তুশাস্ত্র। তাই ঘুম থেকে উঠে এঁটো বাসন অথবা তেলচিটে বাসন দেখা উচিত নয়। আগের দিন রাতেই তা মেজে ফেলুন। ঘুম থেকে উঠে রান্নাঘরে গিয়ে কোন জলের পাত্র থেকে ধোঁয়া নির্গত হওয়া দেখা একদমই উচিত নয় এবং আগুনে পুড়ে যাওয়া কোন পাত্র দেখা উচিত নয়। তা আপনার জীবনে চরম দুর্ভোগের কারণ হয়ে দাঁড়াতে পারে। সেই কারণেই রান্নাঘরের বাসন ভালো করে পরিষ্কার করে বেধে রাখা উচিত আগের দিন।
কুমড়ো সুস্বাদু খেতে হলেও ঘুম থেকে উঠে কুমড়ো দেখা উচিত নয়। তার কারণ কুমড়ো নেতিবাচক শক্তির উৎপত্তিস্থল বলে মনে করা হয় বাস্তুশাস্ত্রে।

আমাদের দৈনন্দিন জীবনের ছুরি-কাঁচি ও বঁটি এই জিনিসগুলো অত্যন্ত দরকারি এবং যা ব্যবহারযোগ্য। কিন্তু বাস্তুমতে এগুলো নেতিবাচক শক্তিকে আকৃষ্ট করে। তাই ঘুম থেকে উঠে এগুলি দেখা একদম উচিত নয়।