দেখে নিন ব্যর্থতা থেকে ঘুরে দাঁড়ানোর চাণক্য নীতি

9
দেখে নিন ব্যর্থতা থেকে ঘুরে দাঁড়ানোর চাণক্য নীতি

চাণক্য নীতি অনুযায়ী, আমাদের প্রত্যেকের উচিত জীবনে সব রকম ব্যর্থতা থেকে উচিত শিক্ষা নেওয়া। ব্যর্থতা কখনো কোনো মানুষকে হারিয়ে দিতে পারে না। বরং ব্যর্থতা থেকে পরবর্তী সফলতার এটি রাস্তা খুলে যায়। ব্যর্থতা আসবে তবে জীবনে সাফল্য আসে। তাই কখনো ব্যর্থ হলে জীবনে হতাশ হয়ে না গিয়ে তাকে অবলম্বন করে জীবনে এগিয়ে যাওয়া উচিত।

চাণক্য মতে, কখনো খারাপ পরিস্থিতিতে শোক করা উচিত নয়। এই সমস্ত লক্ষণ কাপুরুষদের লক্ষণ। মানুষ সমস্ত জীবের থেকে উন্নত। তাই কখনো জীবনে হেরে গেলে ঘুরে দাঁড়ানোর সাহস ছেড়ে দেবেন না।

তিনি আরো বলেন, ব্যর্থতা নিয়ে কখনো আতঙ্কিত হওয়া উচিত নয়। ব্যর্থ হবার সঙ্গে সঙ্গে আপনাকে আত্মসচেতন হতে হবে। কোথায় কেমন ত্রুটি ছিল তা আগে অনুসন্ধান করার চেষ্টা করতে হবে। নিজের অক্ষমতার অনুসন্ধান করে তাকেই সাফল্যের পরিণত করে দিতে হবে।

ব্যক্তি সফল না হওয়া পর্যন্ত তাকে চেষ্টা চালিয়ে যেতে হবে। কখনোই সাফল্য না পাওয়া পর্যন্ত থেমে যাওয়া উচিত নয় কারোর। ব্যর্থতা বা দুর্বল ফলাফলের ক্ষেত্রে কখনো সংযম অথবা ধৈর্য হারিয়ে ফেলবেন না। সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়টি হলো, যে কোন ব্যক্তির যেকোনো পরিস্থিতিতে ধৈর্য এবং ইচ্ছাশক্তি ছেড়ে দেওয়া উচিত নয়। তাহলে আপনি আর কখনো জীবনে জয়লাভ করতে পারবেন না। ব্যর্থতার পরে সম্ভাবনার দরজা বন্ধ হয়ে যায় না, বরং একটি দরজা বন্ধ হয়ে গেলে আরো অনেক দরজা খুলে যায় আপনার সামনে।

গতকাল পর্যন্ত যারা আপনার ব্যর্থতার জন্য আপনার কাছ থেকে মুখ ঘুরিয়ে নিয়ে ছিল, সফলতা অর্জন করার পর দেখবেন তারাই আবার আপনার সঙ্গে কথা বলতে চাইছে।