হাসপাতালে ভিড় না বাড়িয়ে অক্সিজেন পেতে পিপুল গাছের তলায় বসুন! এমনই নিদান যোগীর পুলিশের

14
হাসপাতালে ভিড় না বাড়িয়ে অক্সিজেন পেতে পিপুল গাছের তলায় বসুন! এমনই নিদান যোগীর পুলিশের

অক্সিজেনের অভাবে চারিদিকে শুধু হাহাকার শোনা যাচ্ছে। এই মুহূর্তে দেশে যে পরিমাণ অক্সিজেন রয়েছে তা করোনা রোগীদের চাহিদা মেটাতে সক্ষম নয়। দেশের প্রতিটি প্রান্ত থেকেই অক্সিজেনের জন্য হাহাকার শোনা যাচ্ছে। একটু অক্সিজেনের অভাবে মৃত্যু হচ্ছে শত শত মানুষের। এমন এক কঠিন পরিস্থিতিতে যেখানে দিনরাত করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করছে মানুষ সেই সময়ে প্রশাসনের ভূমিকা নিয়ে উঠছে বহু প্রশ্ন।

সম্প্রতি উত্তর প্রদেশ পুলিশের বিরুদ্ধে এক মারাত্মক অভিযোগ তুললেন রোগীর পরিবার। একটি-দুটি পরিবার নয়, উত্তর প্রদেশের লখনৌ, কানপুর, প্রয়াগরাজের পুলিশ কর্মীরা রোগীর পরিবারকে অক্সিজেনের ঘাটতি মেটাতে গাছের তলায় বসার পরামর্শ দিচ্ছেন! অক্সিজেন সিলিন্ডার চেয়ে যতবারই তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করা হোক না কেন তাদের মুখে একটাই বুলি শোনা যাচ্ছে, “অক্সিজেন পেতে পিপুল গাছের তলায় বসুন!”

উত্তরপ্রদেশের পুলিশকর্মীরা বর্তমানে রোগীর পরিবারকে রোগীকে নিয়ে হাসপাতালে ছোটাছুটি করতে বারণ করছেন। বদলে হাসপাতালে ভিড় না বাড়িয়ে বাড়িতেই রুগীকে যত্নে রাখার পরামর্শ দিচ্ছেন। এমন এক কঠিন সংকটময় মুহূর্তে রোগীর পরিবার যেখানে রোগীকে বাচাঁনোর জন্য আপ্রাণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে, সেখানে পুলিশ প্রশাসনের এহেন দায়সারা মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে ফুঁসছে নেটদুনিয়া।

প্রসঙ্গত উত্তরপ্রদেশের অক্সিজেনের অভাব দূর করতে লখনৌসহ ৪৫-৭৫ টি জেলায় অক্সিজেন প্ল্যান্ট সরবরাহ করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। পিএম কেয়ার ফান্ডের টাকায় এই অক্সিজেন প্ল্যান্ট বসানো হবে বলে জানানো হয়েছে। এর পরিপ্রেক্ষিতে কেন্দ্রীয় সরকারকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ।