সম্প্রতি ভাগ্য বদলে গেল এক শ্রমিকের! কুয়ো খুড়তে গিয়ে পেলেন বহুমূল্য পাথর

27
সম্প্রতি ভাগ্য বদলে গেল এক শ্রমিকের! কুয়ো খুড়তে গিয়ে পেলেন বহুমূল্য পাথর

ভাগ্য এমন একটি জিনিস যা সহায় হলে আপনি রাতারাতি বড়লোক হয়ে যেতে পারেন আর ভাগ্য যদি সহায় না হয়, তাহলে আপনার দুর্দশার সীমা থাকবেনা। সম্প্রতি ভাগ্য খুলে যাওয়ার এক অনবদ্য ঘটনার সাক্ষী থাকলো শ্রীলংকার কলম্বোর এক শ্রমিক। কুয়ো খুঁরতে গিয়ে হঠাৎ করে তিনি পেয়ে গেলেন বিশাল আকৃতির একটি নীল পাথর যার ওজন ৫১০ কিলোগ্রাম। এই পাথর নিয়ে তিনি যখন পাথর ব্যবসায়ীদের কাছে গিয়েছিলেন তারা অনুমান করেছেন এই নীলার দাম প্রায় ৭৪৩ কোটি,৭৮ লাখ,৭৬৯ টাকা। শ্রীলংকার সরকারের তরফ থেকে আপাতত এই বহুমূল্য পাথর থেকে তাদের হেফাজতে রাখা হয়েছে। ইতিমধ্যেই এটি বিক্রি করার জন্য প্রক্রিয়া শুরু করে দিয়েছেন সরকার।

এই প্রসঙ্গে এক আধিকারিক জানিয়েছেন, একজন শ্রমিক কুয়ো খুঁড়তে গিয়ে একটি নিলা পেয়েছেন। রত্ন পুরা শহরে এই কাজটি করা হচ্ছিল। আগেও একাধিকবার এই শহর থেকে বিভিন্ন পাথর উদ্ধার করা হয়েছে। যে শ্রমিক পাথরটিকে উদ্ধার করেছেন, তিনি নিজেই জানিয়েছেন এই পাথরের কথা। তার থেকে সমস্ত খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে পাথরটি কে উদ্ধার করা হয়।

এই পাথরটি যার বাড়ি থেকে উদ্ধার করেছেন তার নাম ডাক্তার গমাগে। নিরাপত্তার কারণে শ্রীলংকার সরকার ডাক্তারের ঠিকানা জানাতে রাজি হয়নি। সরকারের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, এই পাথর কেটে বাজারে বিক্রির উপযুক্ত করতে কম করে এক বছর লেগে যাবে। সম্ভবত এটি বিশ্বের সবথেকে বড় নীলা। ১০০ সেন্টিমিটার লম্বা এবং ৭২ সেন্টিমিটার চওড়া এটি। যেহেতু এই পাথরটি ডাক্তার গমাগের থেকে উদ্ধার করা হয়েছে, তাই অবশ্যই তিনিও এর অংশীদার হবে। তবে কতখানি সেটা সময় সাপেক্ষ এবং আলোচনা সাপেক্ষ।

শ্রীলঙ্কায় উদ্ধার বিশাল আকৃতির নীলা

শ্রীলঙ্কায় উদ্ধার বিশাল আকৃতির নীলা