কনটেইনমেন্ট জোনের বাইরে থাকা স্কুল গুলিতে আগামী ২১শে সেপ্টেম্বর থেকে পঠন-পাঠন চালু হবে

15
কনটেইনমেন্ট জোনের বাইরে থাকা স্কুল গুলিতে আগামী ২১শে সেপ্টেম্বর থেকে পঠন-পাঠন চালু হবে

কোভিড পরিস্থিতিতে স্বাস্থ্য সংক্রমণ এড়াতে বিগত প্রায় ৬ মাস ধরে দেশের সমস্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান গুলি বন্ধ রাখার সিদ্ধান্তেই অটল থেকেছে ভারত সরকার। তবে এতে ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন ছাত্রছাত্রীরা। তাই করোনা মহামারীর মধ্যেই এবার পরীক্ষামুলকভাবে, শর্তসাপেক্ষে প্রত্যেকটি স্কুলে নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণি অব্দি ক্লাস শুরু করার অনুমতি দিয়েছে কেন্দ্র সরকার।

কেন্দ্রের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, আগামী ২১শে সেপ্টেম্বর থেকে দেশের প্রতিটি স্কুলে নবম থেকে দশম শ্রেণী অব্দি পঠন-পাঠন শুরু করা যাবে। তবে সে ক্ষেত্রে বেশ কিছু নিয়ম-নিষেধাজ্ঞা বেঁধে দেওয়া হয়েছে। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী কে তরফ থেকে প্রকাশিত নির্দেশিকায় জানানো হয়েছে, ক্লাস শুরু হলেও ছাত্র-ছাত্রীদের স্কুলে আসা বাধ্যতামূলক নয়। তবে যারা আসবেন তাদের সঙ্গে অবশ্যই অভিভাবকের অনুমতি পত্র থাকা বাধ্যতামূলক।

শুধুমাত্র কনটেইনমেন্ট জোনের বাইরে থাকা স্কুল গুলিই খোলার অনুমতি দেওয়া হয়েছে। কেন্দ্রের তরফ থেকে সাফ জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, কনটেইনমেন্ট জোনের মধ্যে যেসকল শিক্ষক বা পড়ুয়া বাস করছেন, তারা কোনমতেই স্কুলে আসতে পারবেন না। পাশাপাশি, স্কুল খোলা থাকলেও অনলাইন পঠন-পাঠন যেমন চলছিল তেমনই চলবে বলে জানিয়েছে কেন্দ্র।

এদিকে, স্কুল চলাকালীন বেশ কিছু নিয়ম মানতে হবে বলে নির্দেশিকা প্রকাশ করেছে কেন্দ্র। যেমন, ক্লাসে উপস্থিত প্রতিটি পড়ুয়ার সাথে ফেস মাস্ক থাকা আবশ্যিক। ক্লাস চলাকালীন প্রতিটি পড়ুয়ার মধ্যে যাতে ৬ ফুট দূরত্ব বজায় থাকে, সেদিকে দৃষ্টি রাখতে হবে স্কুল কর্তৃপক্ষকে। স্কুলে হ্যান্ড স্যানিটাইজারের বন্দোবস্ত রাখতে হবে এবং প্রত্যেক ছাত্রকে প্রতি ঘন্টা অন্তর ৪০-৫০ সেকেন্ড ধরে হাত ধোয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি, বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে যেখানে সেখানে থুথু ফেলায় নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। যেকোনো রকম শারীরিক সমস্যা অনুভব করলে অবিলম্বে স্কুল কর্তৃপক্ষকে জানাবে শিক্ষার্থীরা।