সোশ্যাল মিডিয়ায় বিরোধী জোট শিবিরকে সমর্থনের আর্জি রাহুল গান্ধীর, বিক্ষোভ বিরোধীদের

9
সোশ্যাল মিডিয়ায় বিরোধী জোট শিবিরকে সমর্থনের আর্জি রাহুল গান্ধীর, বিক্ষোভ বিরোধীদের

বুধবার, বিহারের বিধানসভা নির্বাচন প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। প্রথম দিনেই কংগ্রেস দলনেতা রাহুল গান্ধীর বিরুদ্ধে নির্বাচনী আইন ভঙ্গ করার অভিযোগ তুললো বিরোধী বিজেপি শিবির। বিজেপির অভিযোগ, ভোটদান পর্ব শুরু হয়ে যাওয়ার পর সোশ্যাল মিডিয়ায় বিহারবাসীর কাছে ভোটের জন্য আবেদন করেছেন রাহুল গান্ধী। এভাবে তিনি নির্বাচনী আইন ভেঙেছেন। তার বিরুদ্ধে আইনী পদক্ষেপ গ্রহণ করার আর্জি জানাতে থাকে বিজেপি।

উল্লেখ্য, বুধবার সকাল সাতটা নাগাদ বিহার বিধানসভা নির্বাচনের প্রথম দফার ভোট দান পর্ব শুরু হয়ে যায়। বিহার নির্বাচন নিয়ে রাজনৈতিক শিবিরগুলির মধ্যে রীতিমতো লড়াই চলছে। এমন পরিস্থিতিতে এদিন সকালে কংগ্রেস দলনেতা রাহুল গান্ধী একটি টুইট বার্তায় বিহারের ভোটারদের উদ্দেশ্যে লিখেছেন, ন্যায়ের জন্য, রোজগারের জন্য, কৃষক-মজুরের সুবিধার্থে এবার বিরোধী জোট শিবিরকেই সমর্থন করুন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় রাহুল গান্ধীর এহেন মন্তব্যের পরেই তার বিরুদ্ধে সুর চড়াতে থাকে বিরোধী বিজেপি এবং জেডিউ সমর্থকরা। তারা একযোগে অভিযোগ করতে থাকেন, নির্বাচনী আইনের বিরোধিতা করেছেন রাহুল গান্ধী। এর জন্য তার শাস্তি হওয়া দরকার। উল্লেখ্য, ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনের আগে অনুমোদিত সংশোধনী নির্বাচনী আইন অনুসারে ভোটগ্রহণ পর্বের ৪৮ ঘণ্টা আগে থেকে ভোটগ্রহণ কেন্দ্রের কোনো রকম প্রচার চালাতে পারবে না রাজনৈতিক শিবির গুলি।

তবে, যে সকল কেন্দ্রে ভোটগ্রহণপর্ব চলছে সেগুলি বাদে বাকি কেন্দ্রগুলিতে ভোটের প্রচার চালানো যেতে পারে। তবে সোশ্যাল মিডিয়া সম্পর্কে অবশ্য কোনো বিধি-নিষেধ আরোপ করা হয়নি। রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে, এক্ষেত্রে নির্বাচনী কমিশন যে সিদ্ধান্ত নেবেন তাই গ্রহণীয় হবে।