ভবিষ্যতে আরও কমতে পারে তেলের দাম! অনুমান করছেন ব্যবসায়ীরা

4
ভবিষ্যতে আরও কমতে পারে তেলের দাম! অনুমান করছেন ব্যবসায়ীরা

করোনা পরিস্থিতিতে নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রীর দাম বৃদ্ধির পাশাপাশি সরষের তেলের দাম আকাশ ছুঁয়ে ফেলেছে। দুই তিন মাস আগেও সরষে এবং সয়াবিন তেলের দাম বেড়েছে। তবে বর্তমানে তেলের দাম 17 থেকে 22 টাকা কমে গিয়েছে। এর প্রকৃত কারণ আমদানীকৃত ভোজ্যতেলের উপর কর কমিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। ফিউচার ট্রেডিং নিষিদ্ধ করার জন্য সরকারের তরফ থেকে এই আদেশ জারি করা হয়েছে।

ভবিষ্যতে তেলের দাম আরও কমতে পারে বলে অনুমান করছেন ব্যবসায়ীরা। ভবিষ্যতে তেলের দাম আরো কমতে পারে বলে আশা করা হচ্ছে। যে কারণে মানুষের পকেটের ভার হালকা হবে। অক্টোবর-নভেম্বর মাসে সরষের তেল প্রতি লিটার 185 টাকায় বিক্রি হয়েছে। তা এখন কমে 163 থেকে 168 টাকা নেমেছে। সয়াবিন তেলের দাম নভেম্বর মাসেও প্রতি লিটার 140 টাকা ছিল। বর্তমানে তা কমে হয়েছে 130 থেকে 132 টাকা প্রতি লিটার।

সয়াবিন খরিফ ফসল। সয়াবিনের উপাদান কম হওয়ায় সেপ্টেম্বর মাস থেকে দাম বাড়তে শুরু করেছে। সেপ্টেম্বরে সয়াবিন তেলের দাম 90 টাকা থেকে বেড়ে জানুয়ারিতে লিটার প্রতি 140 টাকা হয়েছিল। তেলের দাম চার মাসে লিটার প্রতি 45 টাকা বৃদ্ধি পেয়েছে। এতে বেজায় ক্ষুব্ধ সাধারণ মানুষ। যদিও এবার আমদানিকৃত ভোজ্যতেলের উপরে কর শূন্য করে দিয়ে তেলের বর্ধিত দামে রাশ আনতে চাইছে কেন্দ্রীয় সরকার।