এবার মোবাইলেই জানা যাবে হৃদযন্ত্রে কোনরকম সমস্যা আছে কিনা

7
এবার মোবাইলেই জানা যাবে হৃদযন্ত্রে কোনরকম সমস্যা আছে কিনা

২০০ বছর আগে আবিষ্কার হয়েছিল স্টেথোস্কোপ এবং যার পর থেকে চিকিৎসা জগতে এক অভিনব আবিষ্কার। এর ফলে চিকিৎসকরাই স্টেথোস্কোপের মাধ্যমে মানব শরীরের হৃদযন্ত্রের শব্দ শুনতে পায়। হৃদযন্ত্র বিভিন্ন কপাটিকা বন্ধের শব্দের সাথে সাথে রক্ত সঞ্চালনের শব্দ এই যন্ত্রের মাধ্যমে শোনা যায়।

এরফলে বোঝা যায় যে হৃদযন্ত্রে কোনরকম সমস্যা আছে কিনা। এইবার এই কাজে কিছুটা পা বাড়িয়েছে মোবাইলের একটি অ্যাপ। এমনই দাবি বৃটেনের প্রযুক্তিবিদদের। এই অ্যাপটি তৈরি করেছেন লন্ডনের কিংস কলেজের কয়েকজন বিজ্ঞানী তবে তাদের সাথে রয়েছেন মাসট্রিক্ট বিশ্ববিদ্যালয় এবং সেলিউল ডিজাইন স্টুডিও কয়েকজন বিজ্ঞানী।

জানা গেছে চলতি সপ্তাহে এই অ্যাপটি আনুষ্ঠানিকভাবে প্রকাশ হবে লন্ডনের একটি বিজ্ঞান সম্মেলনে। এই গবেষণার সঙ্গে যুক্ত ছিলেন ব্রিটিশ হার্ট ফাউন্ডেশন এবং এলভিনা চিল্ড্রেন হার্ট অর্গানাইজেশন হৃদরোগ বিশেষজ্ঞরা। এই অ্যাপটির মাধ্যমে পরীক্ষা করা হয় ১৪৮ জনের উপর এবং সেই ক্ষেত্রে দেখা গেছে যে লিঙ্গ এবং ওজন নির্বিশেষে মানুষের হৃদস্পন্দন এই অ্যাপটি ধরতে পারছে।

তবে প্রশ্ন কীভাবে এই অ্যাপটি ব্যবহার করা যাবে? বুকের নির্দিষ্ট চারটি জায়গায় ফোন ধরে রাখতে হবে এবং তারপরে পর্দার কেবল রেকর্ড করার বিকল্পটি বেছে নিয়ে করতে হবে। মোবাইলে জমা হয়ে যাবে হৃদস্পন্দনের আওয়াজ। প্রযুক্তিবিদের দাবি এই অ্যাপটি আগামী দিনে চিকিৎসাক্ষেত্রে বড়োসড়ো রকমের বদল আনতে পারে। তবে যারা এই অ্যাপটি দেখেছেন তাদের অনেকেই চাইছেন মৃত্যুপথযাত্রী প্রিয়জনদের হৃদস্পন্দন রেকর্ড করতে যাতে সেটা তারা সংরক্ষিত রেখে দিতে পারে স্মৃতি রক্ষার ক্ষেত্রে।