করোনার তৃতীয় ঢেউয়ের করিডর হতে চলেছে উত্তরবঙ্গ! আশঙ্কা বিশেষজ্ঞদের

19
করোনার তৃতীয় ঢেউয়ের করিডর হতে চলেছে উত্তরবঙ্গ! আশঙ্কা বিশেষজ্ঞদের

করোনার তৃতীয় ঢেউ নিয়ে উদ্বিগ্ন ভারতের প্রশাসন। পশ্চিমবঙ্গের পরিস্থিতিও উদ্বেগজনক। এদিকে উত্তরবঙ্গের করোনার গ্রাফ ক্রমাগত ঊর্ধ্বমুখী। যা থেকে স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা আশঙ্কা করছেন করোনার তৃতীয় পর্যায়ের করিডর হতে চলেছে উত্তরবঙ্গ। উত্তর পূর্ব ভারতের করিডরও উত্তরবঙ্গ। কারণ উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন জেলার মাধ্যমে উত্তর ভারতের বিভিন্ন রাজ্যে যাওয়া যায়। তাই করোনা নিয়ে প্রশাসনের আশঙ্কা কার্যত ক্রমাগত বাড়ছে।

কোচবিহার, আলিপুরদুয়ার, শিলিগুড়ির সঙ্গে উত্তরপূর্ব ভারতের রাজ্যগুলির যোগাযোগ রয়েছে। নিয়মিত যাতায়াত হয় এই পথ ধরে। অতএব করোনার সংক্রমণ বৃদ্ধির আশঙ্কা করছেন বিশেষজ্ঞরা। তাই উত্তর পূর্ব ভারত হয়ে উত্তরবঙ্গের করিডর মারফত সারা রাজ্যের করোনা সংক্রমনের হার বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করছে প্রশাসন। এদিকে আবার বিগত কয়েকদিনের করোনার গ্রাফ থেকে বেশ স্পষ্ট এই যে উত্তরবঙ্গের করোনা সংক্রমনের হার বাড়ছে।

একদিনে সংক্রমণে তৃতীয় স্থানে পৌঁছে গিয়েছে দার্জিলিং। গত ২৪ ঘণ্টায় সেই জেলাতে সংক্রামিত হয়েছেন ৭৪জন। বিগত একদিনে কোচবিহার জেলাতে সংক্রমিত হয়েছেন ৪৬জন। যদিও উত্তরবঙ্গের জেলাগুলির পরিস্থিতি উদ্বেগজনক জেনে আগেভাগেই ব্যবস্থা গ্রহণ করতে শুরু করেছে পুলিশ এবং প্রশাসন। দার্জিলিঙে যাতায়াতের ক্ষেত্রে ব্যাপক কড়াকড়ি শুরু হয়েছে। উত্তরবঙ্গের প্রতিটি জেলাতে করোনা সতর্কতা বিধি যাতে সকলে মেনে চলেন তার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

শিলিগুড়ির বাজার খোলার ক্ষেত্রেও নিয়ন্ত্রণ আনা হয়েছে। ডুয়ার্সের বিভিন্ন এলাকায় পর্যটকদের যাতায়াতের ক্ষেত্রে আরটিপিসিআর নেগেটিভ রিপোর্ট অথবা ভ্যাকসিনের দুটি ডোজ নেওয়া রয়েছে কিনা তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। পশ্চিমবঙ্গের পাশাপাশি উত্তর পূর্বের রাজ্যগুলিতেও করোনা সংক্রমণ এড়াতে ব্যাপক কড়াকড়ি শুরু হয়েছে বলে জানা যাচ্ছে।