ভারতীয় সেনা দলে নাম লেখালেন শহীদ মেজর বিভূতি শঙ্কর ধোন্ডিয়াল এর স্ত্রী নিকিতা

11
ভারতীয় সেনা দলে নাম লেখালেন শহীদ মেজর বিভূতি শঙ্কর ধোন্ডিয়াল এর স্ত্রী নিকিতা

২০১৯ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি, ভারতীয় সেনা বিভাগের কাছে একটি অত্যন্ত স্মরণীয় দিন। জম্মু-কাশ্মীরের পুলওয়ামা জেলায় লুকিয়ে থাকা জঙ্গি দমন অপারেশনে গিয়ে জঙ্গিদের সঙ্গে গুলির লড়াইয়ে সেদিন পাঁচজন ভারতীয় সৈনিক শহীদ হন। জঙ্গিদের সঙ্গে গুলির লড়াইয়ে যারা সেদিন প্রথম সারিতে দাঁড়িয়ে লড়াই করেছিলেন, তাদের মধ্যে অন্যতম হলেন দেরাদুন নিবাসী মেজর বিভূতি শঙ্কর ধোন্ডিয়াল। এই লড়াইয়ে শহীদ হয়েছিলেন তিনি।

মেজর বিভূতি শঙ্কর ধোন্ডিয়ালের শহীদ হওয়ার খবর পেয়ে কান্নায় ভেঙে পড়েছিল তার পরিবার। তবে তার স্ত্রী নিকিতা ধোন্ডিয়াল কিন্তু ভেঙে পড়েননি। বরং স্বামীর মৃতদেহ ছুঁয়ে তিনি শপথ নেন যে তিনি নিজেও ভারতীয় সেনা দলে নাম লেখাবেন। সেই শপথ এতদিনে পূরণ করলেন নিকিতা। শনিবার ভারতীয় সেনা দলের অন্তর্ভুক্ত হলেন নিকিতা। ভারতীয় সেনাবাহিনীর লেফটেন্যান্ট জেনারেল ওয়াই. কে যোশী স্বয়ং তাকে ভারতীয় সেনা দলের অন্তর্ভুক্ত করে নিলেন।

ভারতীয় সেনাবাহিনীতে প্রবেশ করার জন্য গত বছর এলাহাবাদে সেনাবাহিনীর প্রবেশিকা পরীক্ষায় বসেন নিকিতা। সেই পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়ে চেন্নাইয়ের অফিসার্স অ্যাকাডেমি থেকে প্রশিক্ষণ নেন তিনি। এরপর শনিবার চেন্নাইয়ের অফিসার্স অ্যাকাডেমিতে আয়োজিত অফিসার্স প্রশিক্ষণপ্রাপ্তদের প্যারেড অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করেছিলেন তিনি। সেখানেই তার পোশাকে তারা লাগিয়ে তাকে লেফটেন্যান্ট পদের স্বীকৃতি দেন লেফটেন্যান্ট জেনারেল ওয়াই. কে যোশী।

স্বামীর দেখানো পথে হেঁটে নিজের স্বপ্ন পূরণ করতে পেরে উচ্ছ্বসিত নিকিতা। এই স্বপ্নপূরণের উদ্দেশ্যে গত বছর থেকেই বাড়ি থেকে দূরে ছিলেন নিকিতা। কঠোর পরিশ্রম করে পড়াশোনা করে, পরীক্ষা দিয়ে, কঠোর প্রশিক্ষণ নিয়ে আজ তিনি দেশের সেবায় ব্রতী হয়েছেন। করোনার দরুন এখন তিনি তার নিজের বাড়িতে ফিরে আসতে পারছেন না। করোনা আতঙ্ক কিছুটা কাটলেই উত্তরাখণ্ডের রাজধানী দেরাদুনে নিজের বাড়িতে ফিরে আসবেন তিনি।