ভারত মহাসাগরে নজরদারী চালাতে নৌবাহিনীর বিমান পি-৮ আই পৌছে গেছে সেশেলসে

16
ভারত মহাসাগরে নজরদারী চালাতে নৌবাহিনীর বিমান পি-৮ আই পৌছে গেছে সেশেলসে

এখন আর ঐ দিন নেই, ভারতের ওপরে জোড়জুলুম করার দিন শেষ, আর সেই কারণেই ভারত মহাসাগরে নজরদারী চালাতে, তার থেকেও বড় কথা চিনকে টেক্কা দিতে ভারতীয় নৌবাহিনীর বিমান পি-৮ আই পৌছে গেছে সেশেলসে। আমরা জানি সেশলসের সাথে ভারতের প্রতিরক্ষার সম্পর্ক অনেকটাই মজবুত। সেশেলস সরকারের অনুরোধেই ভারত সরকার এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে, তারা জানিয়েছে নির্দিষ্ট ইকোনোমিক জোনেই টহল দেবে হেলিকপ্টার।

চিনের বিরুদ্ধে রুখে দাড়ানোর জন্য সেশেলসে বহুবার ভারতের সাহায্য নিয়েছে, আর ভারতও সেশলসকে সামরিক দিক থেকে ও আর্থিক দিক থেকে সাহায্যো করেছে। করোনা সময়ে ভারত সেই দেশের পাশে দারিয়েছে, করোনা ভ্যাক্সিন উপহার দিয়েছে, এখানেই শেষ নয় সেশেলে কোস্টগার্ডের জন্য দ্রুত একটি টহল নৌকা ও এক মেগাওয়াটের সৌরবিদ্যুত কেন্দ্রের প্রকল্প শেষ করেছে ভারত।

তাই এবারও ভারত সেশেলসকে সাহায্য করতে পিছপা হয় নি। এই পি-৮ আই বিমান গুলি খুবই বিপজ্জনক শত্রুপক্ষের জন্য, কারণ এই বিমানগুলি এন্টি সাবমেরিন ও এন্টি সারফেস যুদ্ধ চালাতে দারুণ ভাবে সক্ষম। এর অপারেটিং পরিসীমা ১২০০ নটিক্যাল মেইল। বিমানের সর্বোচ্চ গতি ৯০৭ কিমি প্রতি ঘন্টায়। এর মধ্যে রয়েছে হারপুন ব্লক-২ মিসাইল, এমকে-৫৪ যার ওজন কম, যেটাতেই তার গুণ প্রকাশ পায়।

তাছাড়া যেকোনো ধরনের রাডারে সজ্জিত গোয়েন্দা তথ্য ও যেকোনো ধরনের ঝুকি সামলাতে দারুণ ভাবে প্রস্তুত। ভারতের এই সিদ্ধান্তে স্বাভাবিক ভাবেই চিনের ওপরে যে চাপ সৃষ্টি হল সেটা আর বলার দরকার নেই, চিনা সাবমেরিনের ওপরে নজর রাখতে দারুণ এই পরিকল্পনা ভারতের যেটা সত্যি দারুণ।