রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রির বিভাজনের প্রস্তুতি শুরু করে দিলেন মুকেশ আম্বানি

4
রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রির বিভাজনের প্রস্তুতি শুরু করে দিলেন মুকেশ আম্বানি

ধীরুভাই আম্বানির মৃত্যুর পর সম্পত্তির বাটোয়ারা নিয়ে বিরোধ দেখা যায় মুকেশ আম্বানি এবং অনিল আম্বানির মধ্যে। এবার যখন চরমে পৌঁছে তখন মা আনন্দিবেন দুই ভাইকে সমান ভাগে ভাগ করে যান সম্পত্তি। সেই ক্ষত আজও মনে রেখে দিয়েছেন মুকেশ আম্বানি। তাই রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রির বিভাগের জন্য ইতিমধ্যেই প্রস্তুতি শুরু করে দিয়েছেন মুকেশ আম্বানি।

সম্প্রতি একটি বেসরকারি সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে জানা গেছে, মুকেশ আম্বানির সাম্রাজ্য প্রায় ২০৮ বিলিয়ন ডলারের কাছাকাছি। পূর্ব অভিজ্ঞতা থেকে তিনি একেবারেই চান না, তার সম্পত্তি নিয়ে তার সন্তানদের মধ্যে কোনরকম বিরোধ হোক। ওয়ার্ল্ডমার্ট ইনকর্পোরেটেডের ওয়ালনাট পরিবারের ফর্মুলা অবলম্বন করতে চলেছেন মুকেশ আম্বানি।

এবার চলুন জেনে নেওয়া যাক এই ওয়ালমার্টের পরিবারের কথা। স্যাম ওয়াল্টার তার চার সন্তানের মধ্যে সম্পত্তি ভাগ করে দিয়েছিলেন ২০-২০ শতাংশ করে। এর ফলে করের বোঝা কমে যায় এবং ওই ব্যবসার উপরে সংসার দাঁড়িয়ে থাকে। বর্তমানে পরিবারের সদস্যদের ৫০ শতাংশের বেশি শেয়ার রয়েছে বাজারে।

এই পন্থা অবলম্বন করে সম্প্রতি মুকেশ আম্বানি সিদ্ধান্ত নিয়েছেন, তার সম্প্রতি একটি ট্রাস্টে স্থানান্তরিত করবেন। এই ট্রাস্টে অংশীদার থাকবেন মুকেশ আম্বানি, স্ত্রী নিতা আম্বানি, তিন সন্তান আকাশ, অনন্ত এবং ইশা। আম্মানের বিশেষ কিছু লোককে ট্রাস্টের উপদেষ্টা হিসেবে নিয়োগ করা হবে। যদি এশিয়ার কথা বলা যায় তাহলে আগামী দশকে এই পন্থা অবলম্বন করে ১.৩ ট্রিলিয়ন ডলার প্রথম প্রজন্ম থেকে পরবর্তী প্রজন্মে স্থানান্তরিত করা হবে।