নির্বাচনি প্রচারে বাগডোগরা বিমানবন্দরে এসে পৌঁছালেন মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাস এবং রাজ চক্রবর্তী

13
নির্বাচনি প্রচারে বাগডোগরা বিমানবন্দরে এসে পৌঁছালেন মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাস এবং রাজ চক্রবর্তী

রবিবার শিলিগুড়ি পুরভোটের নির্বাচনি প্রচারে বাগডোগরা বিমানবন্দরে এসে পৌঁছালেন মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাস এবং বিধায়ক রাজ চক্রবর্তী। এদিন বিকাল ৩টা ৫৫ নাগাদ বাগডোগরা বিমানবন্দরে এসে পৌঁছান।

এরপর মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাস বলেন যে নির্বাচন মমতা বন্দোপাধ্যায়ের উন্নয়ন সেই নিরিখে আমরা সারা বাংলায় জিতেছি এবং এখানেও আমরা জিতবো। শিলিগুড়ি বাসি চাইছেন মমতা বন্দোপাধ্যায়ের উন্নয়ন। দীর্ঘদিন যাদের দিয়েছিলেন তারা না জল,না রাস্তা,না ড্রেন কোন কিছুই করতে পারেনি তাদের ব্যর্থতা প্রমাণ হয়েছে।

তাই আবার মমতা বন্দোপাধ্যায়ের হাতেই সবাই দায়িত্ব দিতে চায় তৃণমূল কংগ্রেসকে চাইছে তৃণমূল কংগ্রেস জিতবে। অপরদিকে প্রায়ত লতা মঙ্গেশকর প্রসঙ্গে বলে আমাদের জন্য অনেক বড় ক্ষতি। আমারতো মনে হয় আমরা জীবন্ত সরস্বতীতে হারালাম। গতকাল সরস্বতী পুজো করলাম আর আজকে জীবন্ত সরস্বতী হারালাম শোক প্রকাশের ভাষা নেই।

রাজ চক্রবর্তী বলেন যে খুবই খারাপ লাগছে যখন খবরটা শুনেছি তখন থেকেই মন খারাপ হয়ে গেছে। ভাবতেই পারছিনা যে উনি চলে গেলেন। উনার বয়স যতই হোক না কেন লতা মঙ্গেশকর লতা মঙ্গেশকরই উনার বয়স হতে পারে না। মেনে নিতে হয়েছে মন ভারি হয়ে গেছে। আমার মনে হয় সারা ভারতবর্ষের লোক বা সারা পৃথিবীর লোক এখন দুঃখিত শোকাহত।