ঋণ প্রদানকারী অ্যাপ গুলি মোটেই সেফ নয়, সতর্ক করলো আরবিআই

7
ঋণ প্রদানকারী অ্যাপ গুলি মোটেই সেফ নয়, সতর্ক করলো আরবিআই

বাজারে প্রতিদিন কত নিত্য নতুন অ্যাপ বেরোচ্ছে। আর সাধারণ মানুষ সেই অ্যাপ থেকে নানা রকম কাজ কর্ম করছে। তবে বেশি ঝুঁকি সৃষ্টি করছে ঋণ প্রদানকারী অ্যাপ গুলি। যারা এই অ্যাপ গুলো থেকে টাকা মেটাচ্ছেন বা দিচ্ছেন তাদের সাবধান করছে আরবিআই।

আরবিআই মারফত জানানো হচ্ছে যে এই ঋণ প্রদানকারি অ্যাপ গুলো মোটেই সেফ নয়। এই অ্যাপ গুলির ওপর অনেক অভিযোগ জমা পড়েছে। তাই অর্থমন্ত্রক এবার একটি বড়ো সরো পদক্ষেপ নিতে চলেছে এই অ্যাপ গুলির বিরুদ্ধে। বাজারে ব্যাঙের ছাতার মতো গজিয়ে ওঠা ঋণপ্রদানকারী অ্যাপগুলি নিয়ে উদ্বেগপ্রকাশ করেছে অর্থ মন্ত্রক।

এই শুক্রবার অর্থমন্ত্রক জানিয়েছেন যে, অ্যাপ স্টোর হোক কিংবা গুগল প্লে স্টোর, সব জায়গা থেকেই বহু বেআইনি ঋণ প্রদানকারী অ্যাপ অনায়াসে ডাউনলোড করা যায়। এই অ্যাপগুলি অনেক সময় প্রতারণা করছে। তাই এগুলিকে নিয়ন্ত্রণ করা প্রয়োজন।

এছাড়াও তিনি বলেন, এবার রিজার্ভ ব্যাংক এই ধরনের ঋণঅ্যাপগুলির একটি তালিকা তৈরি করবে। সেই তালিকায় ঠাঁই পাবে শুধু বৈধ ঋণ প্রদানকারী সংস্থাগুলি।

রিজার্ভ ব্যাংক থেকে গভর্নর শক্তিকান্ত দাস অবশ্য আগেই জানিয়েছেন, RBI-এর ওয়েবসাইটে অবশ্য সব নথি রেডি আছে। এবার একটি তালিকা প্রকাশ করা হবে। যেখানে শুধু মাত্র বৈধ অ্যাপ গুলির নাম নথিভুক্ত থাকবে। আর সেগুলোই একমাত্র ডাউনলোড করা যায়। আর যেগুলো বৈধ নয় সেগুলো করা যাবে না।

তবে রিজার্ভ ব্যাংকে নথিভুক্ত নয়, তাই এই অ্যাপগুলির বিরুদ্ধে কোনও অভিযোগ থাকলে সোজা পুলিশে জানাতে হবে।
তবে এবার কেন্দ্র থেকে বড়ো সরো সিদ্ধান্ত নেওয়া হলো। এই প্রতারণামূলক অ্যাপ গুলিকে বাজার থেকে সরিয়েই দেওয়া হচ্ছে। আর এই নিয়েই অর্থমন্ত্রকের শীর্ষ আধিকারিকদের সঙ্গে বৈঠক করেন অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ।

তাই বলা যায় এবার হয়তো সাধারণ মানুষ ঋণ সংক্রান্ত অ্যাপ এর প্রতারিত হওয়ার সমস্যা গুলো থেকে মুক্তি পাবে বা নিশ্চিন্ত হতে পারবে।