রোমান-সুস্মিতার ঘনিষ্ঠতার জেরে বড় সিদ্ধান্ত নিলেন ললিত মোদী

6
রোমান-সুস্মিতার ঘনিষ্ঠতার জেরে বড় সিদ্ধান্ত নিলেন ললিত মোদী

আমাদের দেশের প্রাক্তন মিস ইউনিভার্স সুস্মিতা সেন। দেশের সকলের ক্রাশ। তিনি বর্তমানে সিঙ্গেল মাদার। বিয়ে তিনি করেননি। এক বয়ফ্রেন্ড ছিল বলেই সকলে জানত। তবে কিছুদিন আগে তাঁর সাথে নাম জড়ায় গত জুলাই মাসে প্রাক্তন আইপিএল কমিশনার তথা আর্থিক তছরুপের মামলায় অভিযুক্ত ললিত মোদীর। ললিত মোদী নিজের ইনস্টাগ্রামের সুস্মিতার সঙ্গে অন্তরঙ্গ পোস্ট করেন এবং দাবি করেছিলেন সুস্মিতা তাঁর গার্লফ্রেন্ড। এমনকি সুস্মিতাকে নিজের স্ত্রী বলেও পরিচয় দিয়ে বসেন তিনি! প্রোফাইল এ দুজনার ছবিও পোস্ট করেন তিনি। লেখেন, ‘নতুন জীবন শুরু করতে চলেছি আমার পার্টনার ইন ক্রাইম, আমার ভালোবাসা সুস্মিতার সঙ্গে’।

আর যেখানে সুস্মিতা সেন জড়িয়ে সেখানে হইচই হবে না হতেই পারে না। তাই এই খবর প্রকাশ হওয়া মাত্রই শোরগোল পড়ে যায় সোশ্যাল মিডিয়ায়। সকলেই জানতে উদগ্রীব হয় সত্যি কি তাই। তার সাথে এটাই প্রশ্ন ওঠে তাহলে কি সত্যি তাঁর ব্রেকআপ হয়ে গেলো রোমান শলের সঙ্গে। কিন্তু এই সকল প্রশ্নের উত্তর আসে কয়েকদিন পরেই। ললিত মোদী এতো কিছু পোষ্ট করার পরেও সেই সম্পর্ক নিয়ে তেমন কোনও কথাই বলেননি সুস্মিতা সেন। তিনি শুধু জানিয়েছিলেন- ‘আমি খুব আনন্দের জায়গায় আছি!!! বিয়ে হয়নি, আংটিও পরিনি। নিঃশর্ত ভালোবাসায় ঘিরে আছি। যথেষ্ট স্পষ্ট করে বলে দিয়েছি। এবার নিজের জীবনে আর কাজে ফিরি।’

আর তার কদিন পরেই সুস্মিতা সেনকে দেখা যায় রোমান শলের সাথে সময় কাটাতে। এরকম নানা ছবি পোস্ট হয়। এমনকি সুস্মিতার ছোটো মেয়ের জন্মদিনে উপস্থিত ছিলেন রোমান শল। আর এই পোস্টগুলি দেখার পরেই এই নিয়েই চলে চূড়ান্ত ঠাট্টা। ললিত মোদিকে যে মিস ইউনিভার্স পাত্তাই দিলেন না সেটা বুঝতে বেশি সময় লাগেনি কারোরই। আর দেড়-মাস যেতে না যেতেই ললিত মদিকেও দেখা যায় সেই ছবি সব মুছে ফেলতে। এখন বর্তমানে তাঁর সিঙ্গেল ছবি রয়েছে ইনস্টাগ্রামে।

তাই এখন বলাই যায় সুস্মিতা সেনের বর্তমান বয়ফ্রেন্ড আজও রোমান শল। অনেক নাগরিকই বলছেন তাদের ভাঙা সম্পর্ক আবার জোড়া লাগটে চলেছে। অতএব, ললিত মোদী ও সুস্মিতা সেনের সম্পর্কটা শুরু হতে গিয়েও শেষ অব্দি হলো না। আর রোমান শল-ই মিস ইউনিভার্সের বর্তমান মনের মানুষ। অন্তত তাঁদের রিসেন্ট ইনস্টাগ্রাম স্ট্যাটাস তেমন ইঙ্গিতই দিচ্ছে।