আবহাওয়া সম্পর্কে কি জানালো আবহাওয়া দপ্তর, জানুন

12
আবহাওয়া সম্পর্কে কি জানালো আবহাওয়া দপ্তর, জানুন

রবিবার থেকেই কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গে অল্প বিস্তর বৃষ্টি হতে শুরু হয়েছিল। তবে সোমবার সেটা মুষলধারায় পরিণত হয়। কাল সারাদিন ধরে বৃষ্টি হয়েছে সমগ্র কলকাতা ও দক্ষিণবঙ্গের সব গুলি জেলাতেই। ফলে বেশিরভাগ জায়গাতেই জল জমে রাস্তা ডুবে জনজীবন ব্যাহত।

কলকাতার লেক গার্ডেন্স থেকে শুরু করে গড়িয়াহাট, বালিগঞ্জ, টালিগঞ্জ, বেহালা কলেজ স্ট্রিট, ঠনঠনিয়া কালীবাড়ি, বাগবাজারে সব জায়গাতেই এখন দুয়ারে জল। বাড়ি থেকে মানুষ বাইরে বেরোতে পারছেন না। আর এই এতটা পরিমাণে জল জমার কারণে শহরে ডেঙ্গির উৎপাত বেড়েই চলছে। এই জমা জল নিয়ে আতঙ্কের পরিবেশ তৈরি হচ্ছে চতুর্দিকে। কলকাতার পাশাপাশি দুই ২৪ পরগনা, হাওড়া, হুগলি, পূর্ব মেদিনীপুর, নদিয়ায় ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টি হয়েছে। সেখানেও জল জমে গিয়েছে।

আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর থেকে জানিয়েছে যে হাওড়া, হুগলি, পশ্চিম মেদিনীপুর, দুই বর্ধমান, মুর্শিদাবাদে এখনও ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। উপকূলবর্তী এলাকায় হাওয়ার দাপট থাকতে পারে বুধবার পর্যন্ত। সমুদ্রে যেতেও মানা করা হয়েছে মৎস্যজীবীদের।

তাঁরা জানাচ্ছে যে, মূলত মধ্যপ্রদেশের ওপর থাকা নিম্নচাপ থেকে একটি নিম্নচাপের অক্ষরেখা সোমবার ঝাড়খণ্ড ও গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের ওপর দিয়ে বাংলাদেশের দিকে চলে গিয়েছে। আবার মৌসুমী অক্ষরেখা ও গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের দিকে সরে আসছে এই দুটি কারণ পর পর থাকায় এভাবে নিম্নচাপের সৃষ্টি হচ্ছে।

এছাড়াও, আলিপুর আবহাওয়া দফতরের অধিকর্তা গণেশ দাস বলেন, ‘‌১৮ সেপ্টেম্বর উত্তর বঙ্গোপসাগরে ফের একটি নিম্নচাপ তৈরি হতে চলেছে। তবে এটা কোনদিকে যাবে এখনই বলা যাচ্ছে না। ফলে সামনে পূজো। কেমন থাকবে আবহাওয়া এই নিয়ে নিশ্চিত হয়ে কিছু বলা যাচ্ছে না।