‘প্রেগনেন্সি বাইবেল’ নামে বই প্রকাশ করে বিতর্কে পড়লেন করিনা কাপুর

27
'প্রেগনেন্সি বাইবেল' নামে বই প্রকাশ করে বিতর্কে পড়লেন করিনা কাপুর

ফের বিতর্কে র্শীর্ষ শিখরে অবস্থান করছেন অভিনেত্রী করিনা কাপুর। সন্তানের নামকরণ নিয়ে বিতর্কের পর এবার করিনার লেখা নতুন বইয়ের নামকরণ নিয়েও নেটিজেনের মধ্যে বিতর্কের ঝড় বইছে। কারণ করিনা তার দুই বারের প্রেগনেন্সির অভিজ্ঞতা লিপিবদ্ধ করে যে বই প্রকাশ করেছেন তার নাম তিনি রেখেছেন প্রেগনেন্সি বাইবেল। আর এতেই আপত্তি খ্রিস্টান সংগঠনের সদস্যদের। তাদের অভিযোগ করিনা পবিত্র বাইবেলকে অপমান করেছেন।

নিজের দুইবারের প্রেগনেন্সি সম্পর্কিত যাবতীয় অভিজ্ঞতা এবং তথ্যাবলী একটি বইয়ের মাধ্যমে প্রকাশ করেছেন করিনা। তার আশা ছিল হবু মায়েরা তার এই বই পড়ে অনেক কিছু শিখতে এবং জানতে পারবেন। তবে বইটি প্রকাশিত হওয়ার পরমুহূর্তেই বই এর নামকরণ নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়ে গিয়েছে। খ্রিস্টানদের ধর্মগ্রন্থ পবিত্র বাইবেল এর নাম ব্যবহার করাতেই চটেছেন খ্রিস্ট ধর্মাবলম্বীরা।

শোনা যাচ্ছে ইতিমধ্যেই করোনার বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে থানায়। তবে অভিযোগ দায়ের হলেও অবশ্য এফআইআর দায়ের করা হয়নি। কারণ মহারাষ্ট্রের বিডের শিবাজি নগর পুলিস স্টেশনে আলফা ওমেগা ক্রিশ্চিয়ান মহাসংঘ অভিযোগ দায়ের করতে গিয়েছিল। তবে যেহেতু ওই জায়গায় ওই পুলিশ থানার আওতায় ঘটনাটি ঘটেনি তাই করিনা বিরুদ্ধে শিবাজী থানার পুলিশ কোন অ্যাকশন নিতে পারে না।

অভিযোগকারীদের তাই মুম্বাই থানায় অভিযোগ জানানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। করিনা ও আরো দুজনের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ২৯৫-এ ধারায় মামলা দায়েরের আবেদন করা হয়েছে বলে জানা যাচ্ছে। গত ৯ জুলাই করিনার বই ‘প্রেগনেন্সি বাইবেল’ প্রকাশিত হয়েছে। করিনা ছাড়াও এই বইয়ের সহ লেখিকা অদিতি শাহ ভিমজানি। বইটি নিঃসন্দেহে হবু মায়েদের উপকারে লাগবে। তবে বাইবেল শব্দটি ব্যবহার করাতেই বিতর্কের সূত্রপাত হয়েছে।

সম্প্রতি করিনার ছোট ছেলের নাম প্রকাশ্যে এসেছে। সাইফ এবং করিনা আর ছোট ছেলে ও তৈমুরের ভাইয়ের নাম রাখা হয়েছে জে। ছোট ছেলের নামের ক্ষেত্রে আর কোন সম্রাট কিংবা রাজা-বাদশার নাম রাখার ভুল করেননি সাইফিনা। কারণ এর আগের বার তৈমুরের নাম নিয়ে নেট দুনিয়ায় বিস্তর সমালোচনা হয়েছিল। যদিও নেটিজেনদের একাংশের দাবি জে আসলে জাহাঙ্গীরের নামের ছোট অংশ।