তালিবান সরকার গঠনের মহাসমারোহে আমন্ত্রন পেল না ভারত

30
তালিবান সরকার গঠনের মহাসমারোহে আমন্ত্রন পেল না ভারত

আফগানিস্তানের উন্নয়নে বেশ কয়েক হাজার কোটি টাকা ঢেলেছে ভারতবর্ষ। বেশ কয়েকটি প্রকল্পের এখনো কাজ হওয়া বাকি। এদিকে আফগানিস্তানে নতুন করে সরকার গঠন করতে চলেছে তালিবানরা। সরকার গঠনের এই মহাসমারোহে আমন্ত্রিত চীন, রাশিয়া, পাকিস্তান। অথচ ভারতের সেখানে প্রবেশের কোনো অধিকার নেই। আমন্ত্রণ জানানো হলো না ভারতবর্ষকে।

২০ বছর পর আফগানিস্তানের মাটিতে সরকার গঠন করতে চলেছে তালিবানরা। এখন আগের তুলনায় সবকিছুকে নতুনভাবে গড়তে চাইছে তালিবানরা। সাংবাদিক বৈঠকেই তালিবান মুখপাত্র জাবিদুল্লাহ মুজাহিদ আমেরিকাকে আক্রমণ করে বসেন। আমেরিকাকে এদিন এক হাত নিয়ে জঙ্গিনেতা বলেন, আমেরিকান অনুপ্রবেশকারীরা আফগানিস্তান পুনর্গঠনের কাজ করেনি।

জঙ্গিনেতা বলেন, এবার তালিবান জঙ্গিরাই দেশ গঠন করবে। তালেবান জঙ্গীদের তরফ থেকে জানানো হয়েছে বর্তমানে সরকার গঠনের শেষ প্রস্তুতি চলছে আফগানিস্তানে। নতুন জাতীয় পতাকা ও জাতীয় সঙ্গীত স্থির করেও ফেলেছে তালিবানি জঙ্গি নেতারা। উল্লেখ্য তালিবানরা এখন সর্বশক্তি ব্যায় করে পঞ্জশির দখল করতে চাইছে। এদিন সকালে ৩৪ তম তথা শেষ প্রদেশও দখল করে নেওয়ার পর সরকার গঠনের কাজ আরো মসৃণ হয়েছে বলে দাবি জঙ্গী নেতার।

আফগানিস্তানের নাম বদলাতে চায় জঙ্গিরা। আফগানিস্তানের জাতীয় পতাকা এবং জাতীয় সংগীতে বদলাতে চায় তারা। নতুন তালিবান সরকার এই বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবে বলে জানিয়েছেন। একইসঙ্গে সরকারি কর্মচারীদের জন্য সুখবর শুনিয়েছে তারা। সরকারি কর্মচারীদের বেতন দেবে তালিবান সরকার। এমনভাবেই আশ্বস্ত করা হয়েছে তাদের।