প্রান দিয়ে দেব কিন্তু বেইমানি করব না! জল্পনার অবসান ঘটালেন মদন মিত্র

9
প্রান দিয়ে দেব কিন্তু বেইমানি করব না! জল্পনার অবসান ঘটালেন মদন মিত্র

আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনকে কেন্দ্র করে এখন রীতিমতো দলবদলের রাজনীতি চলছে বঙ্গে। দলবদলের এই মরশুমে লাইম লাইটে রয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী। তিনি আদেও দলবদল করবেন কিনা সেই নিয়ে এখন রাজনৈতিক মহলে জোর তরজা চলছে। তবে শুভেন্দু অধিকারী ছাড়াও বর্তমানে মদন মিত্রকে নিয়েও বেশ জল্পনা চলছে সোশ্যাল প্ল্যাটফর্মে। তার একটি পোস্টই মূলত এই জল্পনার সূত্রপাত ঘটিয়েছে।

সম্প্রতি মদন মিত্র ফেসবুকে নিজের ছবি পোস্ট করে ক্যাপশনে লিখেছিলেন “টাইম ফর প্যাক আপ”। সেই থেকে নেটিজেনদের মধ্যে সন্দেহ দানা বাঁধে সম্ভবত তৃণমূল দল থেকে “প্যাক আপ”, অর্থাৎ পাততাড়ি গোটাতে চলেছেন তিনিও। তাকে নিয়ে চর্চা যখন তুঙ্গে, তখন নিজেই সমস্ত জল্পনার অবসান ঘটালেন তিনি। রীতিমতো ফেসবুকে লাইভে এসে তিনি সমস্ত প্রশ্নের জবাব দিলেন।

তিনি জানিয়ে দিলেন, “মদন মিত্র প্রাণ দিয়ে দেবে, কিন্তু বেইমানী করবে না!” কামারহাটির প্রাক্তন বিধায়ক চিটফান্ড কাণ্ডে জড়িয়ে এই মুহূর্তে তৃণমূল দল থেকে কিছুটা হলেও ছিটকে রয়েছেন। তবে রাজনৈতিক মহলে তার দহরম-মহরম এখনো কিন্তু কিছু কম নয়। এখনো তার এক ডাকে হাজার হাজার মানুষ দলের কাজে ঝাঁপিয়ে পড়তে পারেন, এমনই তার ম্যাজিক। মদন মিত্র বুঝিয়ে দিয়েছেন, তৃণমূল সুপ্রিমো তাকে দলে রাখুন বা না রাখুন, তিনি দলের কাজে ঝাঁপিয়ে পড়বেন।

তার লক্ষ্য একটাই, আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূল দলকে জেতানোর দায়িত্ব নেওয়া। প্যাক আপ বলতে কি শুধু পাততাড়ি গোটানোই বোঝায়? মদন মিত্রের কথায়, তা নয়। প্যাক আপ বলতে তিনি বিগত দিনের সবকিছু ভুলে নতুন উদ্যমে দলের কাজে কোমর বেঁধে নেমে পড়তে চান। এদিনের লাইভে এসে তিনি তার জবাব দিয়ে গেলেন।