শ্যাম্পু ছাড়া চুল কিভাবে ভালো রাখা যায়? জেনে নিন

11
শ্যাম্পু ছাড়া চুল কিভাবে ভালো রাখা যায়? জেনে নিন

চুলের চিন্তায় ঘুম ওড়ে অনেকেরই। চুলকে ভালো রাখার জন্য মানুষ কি না করে। কিন্তু বাজারের বেশিরভাগ শ্যাম্পুতেই মিশে থাকে SLS বা SLES, যে সমস্ত রাসায়নিক পণ্য থেকে ক্যান্সারও হতে পারে। আর সবথেকে বড় কথা হল চুলের স্বাস্থ্যের ব্যাপক ক্ষতিও হয়। কিন্তু শ্যাম্পু ছাড়া চুল কিভাবে ভালো থাকবে?

শ্যাম্পু আমাদের চুল ও স্ক্যাল্পে জমে থাকা ধুলো, বালি, ময়লা দূর করে। তাই মাথার ত্বক ও চুলকে পরিষ্কার রাখা অত্যন্ত দরকার। তাই রাসায়নিক শ্যাম্পুর বদলে প্রাকৃতিক পণ্যের সাহায্য আপনি নিতেই পারেন

রিঠা – এটি হল একটি গাছের ফল। স্ক্যাল্প ও চুল পরিষ্কার করার ক্ষেত্রে রিঠা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এই প্রাকৃতিক উপাদানকে শ্যাম্পু আকারে ব্যবহার করা যেতেই পারে। গরম জলে কয়েকটা রিঠা ফুটিয়ে নিতে হবেন। ফেনা বের হতে শুরু করলে গ্যাস বন্ধ করে দিতে হবে। এবার ওই জল দিয়ে শ্যাম্পু করে নিতে হবে।

অনেক সময়, শ্যাম্পুর আকারে হেনাও ব্যবহার করা যেতে পারে। হালকা গরম জলে হেনাটা ভিজিয়ে রাখুন। জল ঠান্ডা হলে ওই মিশ্রণটি চুলের গোড়ায় ও চুলে লাগান। খুশকির সমস্যা থাকলে এতে সামান্য লেবুর রস মিশিয়েও ব্যবহার করলে ভালো ফল পাওয়া যায়।

চুল ও স্ক্যাল্পকে ভাল রাখার ক্ষেত্র অ্যালোভেরা জেল স্ক্যাল্পে মালিশ করুন। তারপর অ্যালোভেরা জেল সমস্ত চুলে লাগিয়ে কিছুক্ষণ পর জল দিয়ে ধুয়ে ফেললে এটি চুল ও স্ক্যাল্পে জমে থাকা সমস্ত ময়লা দূর করে দেবে।

এসবের পাশাপাশি চায়ের লিকার চুলের স্বাস্থ্যের অত্যন্ত উপকারী। লিকার চা বানিয়ে নিয়ে এটা দিয়ে ধীরে ধীরে চুল ও স্ক্যাল্পে ব্যবহার করে হালকা হাতে ম্যাসাজ করা যেতে পারে। শেষে পরিষ্কার জল দিয়ে মাথা ধুয়ে নিলে এটাও শ্যাম্পুর মতোই কাজ করে।

তাই আর দেরী কিসের! চুল ভালো রাখতে উপরিউক্ত পদ্ধতি গুলো ব্যবহার করেই দেখুন, ফল পাবেন হাতেনাতে।