কি করে বুঝবেন জীবনে সুখ আসবে নাকি দুঃখ? জানুন শ্রীকৃষ্ণের এই সাতটি বানী

46
কি করে বুঝবেন জীবনে সুখ আসবে নাকি দুঃখ? জানুন শ্রীকৃষ্ণের এই সাতটি বানী

সময়ের সঙ্গে তাল মেলাতে না পেরে আমরা অনেকেই মানসিক হতাশার শিকার হয়ে যাই। বর্তমান পরিস্থিতিতে যেখানে আমাদের একা লড়াই করতে হয় বর্তমান পরিস্থিতির সঙ্গে সেখানে দাঁড়িয়ে আরো বেশি করে মানসিক হতাশা আমাদের গ্রাস করে। একান্নবর্তী পরিবার থেকে আস্তে আস্তে আমরা যত নিউক্লিয়ার ফ্যামিলিতে পরিণত হয়ে গেছি ততই আমরা নিজের মনের ভাব অন্যের সঙ্গে ভাগাভাগি করে নিতে দ্বিধা বোধ করি, ফলাফল হিসেবে আমাদের কাছে শুধুই থেকে যায় মানসিক হতাশা।

শ্রীকৃষ্ণ তার শ্রীমদ্ভগবদগীতায় আমাদের উদ্দেশ্যে কিছু পরামর্শ দিয়েছিলেন যা আজও সমানভাবে গ্রহণযোগ্য এই সমাজে। চলুন জেনে নেয়া যাক, শ্রীমৎ ভগবত গীতায় শ্রীকৃষ্ণ অর্জুন তথা সমস্ত জীব জগতকে কি শিক্ষা দিয়েছিলেন।

শ্রীকৃষ্ণ বলেছেন, একমাত্র সময় পারে সবকিছু ঠিক করে দিতে। সময় ঠিক করে দেয় মানুষের জীবনে সুখ আসবে নাকি দুঃখ। জীবন কেমন করে কাটবে তার সংকেত মানুষ আগে থেকেই বুঝতে পারবেন তার কার্য থেকে। ভালো খারাপ এই সমস্ত ইঙ্গিত মানুষ পশু পাখিদের থেকেও পেয়ে যায় কিন্তু অজ্ঞতার কারণে সেই সংকেত গুলি বোঝা সম্ভব হয় না।

শ্রীমৎ ভগবত গীতা অনুযায়ী, একবার নারদ মুনি ভগবান বিষ্ণুর সঙ্গে দেখা করতে বৈকুণ্ঠধামে গিয়েছিলেন। সেখানে নারদ মুনি ভগবান বিষ্ণুকে যখন জিজ্ঞাসা করেছিলেন, মানুষের জীবনে সুখ অথবা দুঃখের আগাম ইঙ্গিত কি করে বোঝা যায়, উত্তরে ভগবান বিষ্ণুর বলেছিলেন, যখন কোন ব্যক্তির চোখ ভোর তিনটে থেকে পাঁচটার মধ্যে খুলে যায়, ওই সময়ের মধ্যে যদি সেই ব্যক্তি স্বপ্নে ভগবানের দেখা পান, তাহলে বুঝে নিতে হবে সেই ব্যক্তি জীবনে প্রগতির দিকে এগিয়ে যাবে। ওই ব্যক্তির স্বপ্ন পূরণ করার জন্য তার সহায়তা করবেন স্বয়ং ঈশ্বর।

কোন ব্যক্তির পুজো করার সময় ফুল দিলে সেই ফুল যদি মাটিতে পড়ে যায় তখন বুঝে নিতে হবে ওই ব্যক্তিকে ঈশ্বরের আশীর্বাদ করছেন এবং ওই ইঙ্গিত কোন আগামী শুভক্ষণের ইঙ্গিত দিচ্ছে।

যদি দেখা যায় কোন মানুষ খুব হাসিখুশি রয়েছেন তাহলে বোঝা যায় ওই ব্যক্তির মধ্যে ভগবানের বাস রয়েছে।

যখন ভবিষ্যতের ঘটনা কোন মানুষ আগে স্বপ্ন দেখতে পান তার অর্থ হলো, ঈশ্বর ওই ব্যক্তিকে সংকেত দিচ্ছেন যে আগামী দিনে তাঁর জীবনে কোন ভাল কিছু ঘটতে চলেছে। সামনে এমন দৃশ্য দেখার অর্থ হলো জীবনে খারাপ সময় শেষ হয়ে ভালো সময়ের সূচনা হতে চলেছে।

কোন ব্যক্তি যদি আর্থিক সমস্যায় ভুগে থাকেন এবং তার বাড়িতে সকাল সকাল যদি অন্য কোন মানুষ টাকা অথবা অন্যকোন ধনসম্পত্তি নিয়ে আসেন তাহলে বুঝে নিতে হবে, সংশ্লিষ্ট ব্যক্তির খারাপ সময় শেষ হয়ে ভালো সময় আসতে চলেছে।

কোন বাঁদর যদি কারোর বাড়ির ছাদের ওপরে আমের বীজ ফেলে দেয় অথবা কোনো বিড়াল যদি বাড়িতে বাচ্চার জন্ম দেয়, তাহলে বুঝে নিতে হবে ভগবান এমন কোন সংকেত দিচ্ছেন, যার ফলে আপনি আগামী দিনে ভালো ভাবে জীবন কাটাতে পারবেন