টাইম মেশিন এখন পেয়ে যাবেন মহানগরীতে! অতীতে যাওয়া খুব সহজ হয়ে গেল!

38
টাইম মেশিন এখন পেয়ে যাবেন মহানগরীতে!

আপনি কি ফিরে যেতে চান আপনার অতীতে, বা সেই মোগল আমলে, কিংবা ডাইনোসররের আমলে। তো আপনার স্বপ্ন পূরণ করবে এই টাইম মেশিন।

শুধু অতীত নয় সাথে যেতে পারবেন ভবিষ্যতে। আগামী পৃথিবী কেমন হবে বা আগামীতে মানুষের গতিপ্রকৃতি কেমন হবে ?তাও দেখতে পারবেন এই টাইম ট্র‍্যাভেলে।

এটি বসানো হবে সায়েন্স সিটিতে।সায়েন্স সিটির অধিকর্তা বলেছে, এই মেশিনটি দেখতে অনেকটা ক‍্যাপসুলের মতো। ১৫ জনের সিট থাকবে তার ভেতরে। আর তাদের প্রতিটি শোয়ের সময়সীমা ৩-৪ মিনিট।

এই মেশিন চলবে কম্পিউটার সাইমালেশনের মাধ‍্যমে। এখানে থ্রিডি উপভোগ করার জন‍্য দেওয়া হবে দর্শকদের চশমা। এখানে দেখতে পাওয়া যাবে সেই ডাইনোসর, সেই তুতেনখামেনের সময়কার কথা। গা ছমছমে অনুভূতি।

এর আগে ভেঞ্চুরা নামে একটি টাইম মেশিন আনা হয়েছিল। তার জনপ্রিয়তা এসেছিল অনেক। কিন্তু মানুষের নিরাপত্তার কথা ভেবে ২০১৮ তে বন্ধ করে দেওয়া হয়।

সায়েন্স সিটির ইঞ্জিনিয়ারদের দৌলতে অনেক দিন ঐ যন্ত্রের মেনটেনেন্স করা হয়েছে। কিন্তু পরে তা বন্ধ করে দেওয়া হয়।

এখনকার যন্ত্রদুটো আনা হবে আমেরিকার ডোরন প্রিসিসান সিস্টেম’‌ সংস্থার কাছ থেকে। যন্ত্র দুটোর দাম ৪ কোটি ১৬ লক্ষ টাকা। আগের যন্ত্র আনা হয়েছিল ইংল্যান্ড থেকে।

এই নতুন যন্ত্রে থাকবে ৬৬ ইঞ্চির ডিসপ্লে। দর্শকরা একবারে ১৫ জন বসতে পারবে। তাদের সেই যন্ত্রের ভেতরে দেখানো হবে প্রাগৈতিহাসিক যুগ, মিশরীয় সভ‍্যতা, গ্রীক সভ‍্যতা ও কৃষ্ণগহ্বর প্রভৃতি।।