মন্ত্রী মনোজ তিওয়ারিকে শুভেচ্ছা বার্তা লক্ষ্মীরতন শুক্লার! দিলেন একগুচ্ছ পরামর্শ

8
মন্ত্রী মনোজ তিওয়ারিকে শুভেচ্ছা বার্তা লক্ষ্মীরতন শুক্লার! দিলেন একগুচ্ছ পরামর্শ

একুশের বিধানসভা নির্বাচনের আগেই দলে গোষ্ঠী কোন্দলের জেরে রাজনৈতিক মহল থেকে পালিয়ে বেঁচেছিলেন লক্ষ্মীরতন শুক্লা। তার বরাবরের অভিযোগ, রাজনৈতিক দলে কোনো পদে থেকে নিজের ইচ্ছে কাজ করা যায় না। তিনি এখনও তার পূর্ব সিদ্ধান্তেই বহাল। যে কারণে রাজনীতি থেকে সরে এসে ক্রিকেট পিচেই নিজেকে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করছেন লক্ষ্মীরতন শুক্লা।

তবে তারই এক অনুজ ক্রিকেটার মনোজ তিওয়ারী সম্প্রতি রাজনীতিতে প্রবেশ করেছেন। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তাকে রাজ্যের মন্ত্রিসভায় ঠাঁই দিয়েছেন। তার প্রতি কি বার্তা দেবেন লক্ষ্মীরতন শুক্লা? বিশিষ্ট সংবাদমাধ্যমের কাছে তিনি জানালেন, দলে থেকে নিজের ইচ্ছামত কাজ করা যায় না। নিজস্ব পূর্ব অভিজ্ঞতার কথাই তিনি শেয়ার করতে পারেন মনোজের সঙ্গে।

জয়ের পর পরই অবশ্য মনোজ তিওয়ারিকে ফোনের মেসেজ মারফত শুভেচ্ছা বার্তা পাঠিয়েছিলেন লক্ষ্মীরতন শুক্লা। রাজনীতিতে তাঁর অভিজ্ঞতা মনোজের তুলনায় অনেক বেশি। তাই তিনি যদি কখনো লক্ষ্মীরতন শুক্লার সঙ্গে যোগাযোগ করে তার থেকে কোনো পরামর্শ নিতে চান তাহলে অবশ্যই তাকে সাহায্য করবেন লক্ষী।

মনোজ তিওয়ারি অবশ্য রাজনীতিতে প্রবেশ করার পর পরই কোনো জটিলতায় যেতে চান না। তিনি বরং দলীয় নেতৃত্বের সিদ্ধান্তকেই শিরোধার্য মনে করে কাজ করে যেতে চান। তার বক্তব্য, “আমি চারের ব্যাটেও খেলতে পারি। আবার সাত নম্বরের ব্যাটেও পারি। আমার নিজস্ব কোন পছন্দ অপছন্দ নেই। ক্যাপ্টেন যা সিদ্ধান্ত নেবেন, তাই হবে।”