বহুকাল থেকেই মেয়েদের চুড়ি পরার রীতি প্রচলিত! কিন্তু কেন? জানুন বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা

7
বহুকাল থেকেই মেয়েদের চুড়ি পরার রীতি প্রচলিত! কিন্তু কেন? জানুন বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা

আমাদের ভারতীয় সংস্কৃতিতে বহুকাল আগে থেকেই এক নীতি প্রচলিত আছে যে মেয়েরা হাতে চুড়ি পড়বে। বিবাহিত মহিলাদের ক্ষেত্রে হাতে কাচের চুড়ি বা শাঁখা,পলা, লোহা রাখতেই হবে। অপরদিকে পুরুষদের ক্ষেত্রে কিন্তু হাতে চুড়ি পরা বাধ্যতামূলক নয়। কিন্তু মেয়েদের ক্ষেত্রে চুড়ি পরা বাধ্যতামূলক কেন? এর উত্তরে বলা যেতে পারে প্রাচীনকাল থেকেই আমাদের সংস্কৃতিতে এই রীতির নিরবিচ্ছিন্ন ধারা যখন প্রবাহিত হয়ে আসছে তখন এর কিছু বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা অবশ্যই আছে।

প্রাচীনকাল থেকেই পুরুষরা জমিতে চাষাবাদ করত, মাটি কোপাতো লাঙ্গল দিত প্রভৃতি। এই জন্য পুরুষদের পেশীর জোর বেশি হত। অপরদিকে মহিলারা বরাবরই বাড়ির কাজে নিয়োজিত হতেন। সেখানে রান্না করা ঘর মোছা এছাড়াও ঘরের নানাবিধ কাজে তারা নিযুক্ত হত। তাই পুরুষদের অপেক্ষা মেয়েদের বেশি জোর কম হতো। পেশীর জোর কম হওয়ায় উচ্চ রক্তচাপ জনিত অসুখে তারা বেশি ভুগে থাকেন।

ব্লাড প্রেসার যখন আমরা মাপতে যাই তখন দেখি যে পালসটাকে চেপে মাপা হয়। তাই হাতে যদি চুড়ি পড়া হয় চুরি আমাদের পালসটাকে চেপে রাখে এর ফলে উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে থাকে। তাই বহুকাল থেকে মেয়েদের চুড়ি পরার রীতি প্রচলিত আছে।