এবার জমি কেলেঙ্কারি মামলায় নাম জড়াল জম্মু-কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ‌্যমন্ত্রী ফারুক আবদুল্লার

7
এবার জমি কেলেঙ্কারি মামলায় নাম জড়াল জম্মু-কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ‌্যমন্ত্রী ফারুক আবদুল্লার

জমি কেলেঙ্কারির মামলায় জড়ালেন জম্মু-কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ‌্যমন্ত্রী ফারুক আবদুল্লা। তার প্রতি যে অভিযোগ উঠেছে তাতে প্রায় ২৫ হাজার কোটি টাকার অর্থ-সম্পত্তি তিনি হাতিয়েছেন বলে জানা গিয়েছে। তবে উপত্যকা অঞ্চলের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর দাবি, তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে। তিনি পাল্টা অভিযোগ তুলেছেন, তিনি যাতে তার কার্যকলাপ চালিয়ে যেতে না পারেন তার জন্য স্থানীয় প্রশাসনের তরফ থেকে এই নতুন ষড়যন্ত্র করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, রোশনি জমি মামলায় নাম জড়িয়েছে জম্বু কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর। অভিযোগ, রোশনি জমির বেশ কিছু অংশ হাতিয়ে নিয়েছেন ফারুক আব্দুল্লাহ এবং তার পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা। তার নিজস্ব দল ন্যাশনাল কনফারেন্স পার্টির নামেই এই জমি কেনা হয়েছে। তবে এই অভিযোগ সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন বলে দাবি করেছেন ফারুক আব্দুল্লাহ। তার বক্তব্য অনুসারে, ওই এলাকায় আরও বহু মানুষ বাস করেন।

উপত্যাকা অঞ্চলে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর স্পষ্ট অভিযোগ, পিপলস অ‌্যালায়েন্স ফর গুপকার ডিকলারেশকে দূর্বল করতে তৎপর হয়েছে বিরোধীরা। স্থানীয় প্রশাসন এই ষড়যন্ত্রে সামিল। তিনি আরো জানান, এ বিষয়ে তিনি আর কোনো মন্তব্য করতে চান না। ফারুক আব্দুল্লাহের এহেন মন্তব্যের পরেই ন্যাশনাল কনফারেন্স পার্টির অন্যতম সদস্য দেবেন্দ্র রানা বলেন, ফারুক আব্দুল্লাহের সরকার এই আইন চালু করলেও অন্যান্য সরকারের আমলে আইন পরিবর্তন হয়েছে।

দেবেন্দ্র রানার বক্তব্য, বিষয়টি এখন সর্বতোভাবে বিচারাধীন রয়েছে। সিবিআই তদন্তের পরে আদালত যে রায় দেবে তাই মাথা পেতে নেবে ন্যাশনাল কনফারেন্স পার্টি, এমনটাই জানিয়েছেন তিনি।