সংখ্যা বিচার করে জানুন কেমন হবে আপনার আগামী দিনের জীবন

11
সংখ্যা বিচার করে জানুন কেমন হবে আপনার আগামী দিনের জীবন

আপনার বিবাহিত জীবন আগামী দিনে কেমন কাটবে তা অনেকটাই আন্দাজ করা সম্ভব হয় ম্যারেজ হরোস্কোপের মাধ্যমে। নিউমারোলজি হলো জ্যোতিষ শাস্ত্রের একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ যেখানে সংখ্যা বিচার করে বলা সম্ভব যে আগামী দিনের জীবন কেমন হতে চলেছে। জ্যোতিষ শাস্ত্রে সংখ্যা এমন একটি জায়গা যেটি আমাদের জীবনে অনেকাংশে বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে।

জন্ম তারিখের যেমন বিশেষ একটি গুরুত্ব আছে তেমনি বিয়ের তারিখেও আছে বিশেষ গুরুত্ব। তারিখের উপর অনেকাংশে শুভ-অশুভর ব্যাপারটি নির্ভর করে। এই প্রতিবেদনের মাধ্যমে আমরা সে সম্পর্কে আলোচনা করব। এবার আসুন জেনে নিই কোন মাসের ১ থেকে ৭ তারিখের মধ্যে যাদের বিয়ে হয় তাদের আগামী দাম্পত্য জীবন কেমন হয়।

যাদের মাসের ১ তারিখে বিয়ে হয় তাদের ক্ষেত্রে নিউমারোলজি অনুসারে বলা যায় যে এরা অত্যন্ত উচ্চ আকাঙ্ক্ষা হয়‌। সব সময় এরা প্রচুর কাজের মধ্যে থাকে এবং সাফল্য পেতে চান। দাম্পত্য জীবনে বেশ ভালই কাটে কারণে এরা একে অন্যকে সবসময় সাফল্যের দিকে ঝাঁপিয়ে পড়তে অনুপ্রেরণা দেন, তবে এই ধরনের জুটিদের ক্ষেত্রে জীবনে রোমান্স অত্যন্ত কম থাকে।

যাদের মাসের ২ তারিখে বিয়ে হয় তাদের ক্ষেত্রে নিউমারলজি’ বলে এরা অত্যন্ত সভ্য-ভদ্র প্রকৃতির হয়ে থাকেন। সবসময় দাম্পত্য জীবনে ভারসাম্য বজায় রাখে চলতে পছন্দ করেন। এরা সাদাসিধে প্রকৃতির মানুষ হয়ে থাকেন, আর্থিক দিক থেকে সফলতা না পেয়ে থাকলেও জ্ঞান অর্জনের দিকে এরা বেশি বিশ্বাসী হয়ে থাকে, এবং এদের মধ্যে প্রচুর ভালোবাসা থেকে থাকে।

যাদের মাসের ৩ তারিখে বিয়ে হয় সে সমস্ত দম্পতির অত্যন্ত একে অপরের প্রতি বিশ্বস্ত এবং অনুগত হয়ে থাকেন এরা পরস্পরের প্রতি যত্নশীল হোন, এরা নিজেদের সম্পর্ককে কখনোই নেগেটিভিটিকে প্রবেশ করতে দেয় না।

৪ তারিখে যাদের বিয়ে হয় তাদের দাম্পত্য জীবন অত্যন্ত সুখের হয় কারণ এরা একে অপরের প্রতি অত্যন্ত বিশ্বস্ত প্রকৃতির হয়ে থাকেন এবং একে অপরের প্রতি বোঝাপড়াও এদের মধ্যে খুব ভাল থাকে। এরা একে অপরের প্রতি বিশ্বাস, ভরসা, আস্থা রেখে থাকেন। এরা স্বামী-স্ত্রী নম্বরের আজীবনের ভাল বন্ধু হিসেবেই একে অপরের জন্য হয়ে থাকেন।

যাদের মাসের ৫ তারিখে বিয়ে হয়ে থাকে, তারা অত্যন্ত শান্ত, মননশীল প্রকৃতির হয়ে থাকেন। এরা নিজেদের জায়গাতে সবসময় অটুট থাকেন। সমস্ত সিদ্ধান্তই ভেবেচিন্তে নিয়ে থাকেন দাম্পত্য জীবন খুব সুখেই কাটে।

যাদের যেকোনো মাসের ৬ তারিখে বিয়ে হয়ে থাকে সেই সমস্ত দম্পতিরা অত্যন্ত সুখী হয়, কারণ এরা একে অপরের কাছ থেকে কখনো সরে যান না, সে যতই কঠিন সময় আসুক না কেন এরা সব সময়ের একে অপরকে সাহায্য করে থাকেন এবং নিজেদের মধ্যে কখনোই তৃতীয় ব্যক্তির প্রবেশ হোক সেটা চান না।

যাদের মাসের ৭ তারিখে বিয়ে হয় তাদের ক্ষেত্রে দাম্পত্য জীবন অত্যন্ত আবেগ প্রবণ হয়ে থাকে। এরা ভালো সময় হোক কিংবা খারাপ সময় সব সময় একে অপরের হাত ধরে থাকেন । বিয়ের সময় স্বামী-স্ত্রীর রূপে যে প্রতিশ্রুতি নিয়ে থাকেন তারা সবকটাই সেটা পালিত পালন করেন।