চরম দুঃসংবাদ! খুবই কাছের মানুষকে হারালেন সোহম এবং তার পরিবার

22
চরম দুঃসংবাদ! খুবই কাছের মানুষকে হারালেন সোহম এবং তার পরিবার

একুশের লড়াইয়ে বিজেপিকে হারিয়ে ফের রাজ্যে ক্ষমতায় এলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তার এই লড়াইয়ের সৈনিক হলেন সোহম চক্রবর্তী। চন্ডিপুর কেন্দ্র থেকে বিধানসভা নির্বাচনে জিতেছেন অভিনেতা সোহম চক্রবর্তী। স্বভাবতই জয়ের উল্লাস চলছে তার পরিবার জুড়ে। তবে সেই জয়ের উল্লাসের মাঝেই চরম দুঃসংবাদ অপেক্ষা করেছিল সোহমের জন্য। কাছের মানুষকে হারালেন সোহম এবং তার পরিবার।

সম্প্রতি সোহম চক্রবর্তীর শালিকা পারমিতা নাথ আত্মঘাতী হলেন তার নিজের বাড়িতেই। কলকাতার একটি অভিজাত আবাসনে ছিল তার শ্বশুর বাড়ি। সেই বাড়িতেই আত্মঘাতী হয়েছেন পারমিতা। মৃত্যু কালে তার বয়স ছিল মাত্র ৩৫ বছর। এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে সন্দেহের তীর উঠেছে পারমিতার শ্বশুরবাড়ির সদস্যদের উপর। খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে পৌঁছেছেন সোহম চক্রবর্তীর স্ত্রী।

পরিবার সূত্রে খবর, বিয়ের পরপরই পারমিতার উপর শারীরিক এবং মানসিক নির্যাতন চালাত তার শ্বশুরবাড়ির সদস্যরা। তার শ্বশুরবাড়ি তরফ থেকে তাকে বারংবার বিবাহবিচ্ছেদের জন্য চাপ দেওয়া হচ্ছিল বলেও খবর পাওয়া গিয়েছে। তাই সেই নির্যাতনের হাত থেকে রক্ষা পেতেই এমন চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছেন পারমিতা। রবিবার কলকাতার কেষ্টপুরের এএইচ ব্লকের আবাসন থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার করা হয় তার দেহ।

প্রাথমিক তদন্তের পর পুলিশ জানতে পারে দীর্ঘদিন ধরেই পারমিতার উপর শারীরিক এবং মানসিকভাবে অত্যাচার চালানো হচ্ছিল তার শ্বশুরবাড়িতে। ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে পারমিতা স্বামী রুদ্রপ্রসাদ এবং তার শাশুড়ি বাসন্তী নাথকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এই দুইজনের বিরুদ্ধেই বধূ নির্যাতনের মামলা দায়ের করা হয়েছে।