রাজ্যের প্রত্যেক মহিলা পাবেন ৫০০ টাকা! প্রস্তাব পাস হলো মন্ত্রিসভায়

25
রাজ্যের প্রত্যেক মহিলা পাবেন ৫০০ টাকা! প্রস্তাব পাস হলো মন্ত্রিসভায়

একুশের বিধানসভা নির্বাচনী লড়াই শুরু হওয়ার আগে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দলের তরফ থেকে যে নির্বাচনী ইশতেহার প্রকাশ করেছিলেন তার মধ্যে অন্যতম ছিল রাজ্যের প্রতিটি পরিবারের মহিলাদের জন্য ৫০০ টাকা হাত খরচের ব্যবস্থা। একুশের ভোট বাক্স এর কথা চিন্তা করে মহিলা ভোটারদের আকর্ষণ করার জন্যই কার্যত মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তুরুপের তাস ছিল এই নির্বাচনী ইশতেহার।

মুখ্যমন্ত্রী সেই সময় জানিয়েছিলেন যে একুশের লড়াইয়ে রাজ্যের ক্ষমতায় পুনরায় আসতে পারলে তিনি রাজ্যের প্রতিটি পরিবারের একজন মহিলাকে ৫০০ টাকা করে দেওয়ার বন্দোবস্ত করবেন। একই সঙ্গে তিনি জানিয়েছিলেন তপশিলি জাতি এবং উপজাতীয় মহিলাদের হাজার টাকা করে দেওয়া হবে। সেই কথা রেখেছেন মুখ্যমন্ত্রী। সরকার গঠনের এক মাসের মাথায় তিনি সেই ঘোষণা কার্যকর করার ব্যবস্থা করলেন।

রাজ্য মন্ত্রিসভায় এই মর্মে একটি প্রস্তাব পাস হয়ে গেল। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় পশ্চিমবঙ্গের মহিলাদের নিজে সেই খবর জানালেন। প্রস্তাব পাশ হওয়ার পর তিনি জানালেন যে “সরকার গঠনের এক মাসও পূর্ণ হয়নি, দলের ইশতেহারে যে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলাম তার কিছুটা রক্ষা করলাম”। মন্ত্রিসভায় প্রস্তাবিত এই প্রস্তাব অনুসারে রাজ্যের প্রতিটি পরিবারের একজন মহিলা ৫০০ টাকা পাবেন। তপশিলি জাতি এবং উপজাতি ভুক্ত মহিলাদের ক্ষেত্রে সেই টাকা বেড়ে হবে হাজার টাকা।

এছাড়া এদিন মন্ত্রিসভায় আরো বেশ কয়েকটি প্রস্তাব পাস হয়েছে। যেমন উচ্চমাধ্যমিকের পর পড়ুয়ারা দশ লক্ষ টাকার ক্রেডিট কার্ড পাবেন বলে নির্বাচনের আগেই ঘোষণা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। সেই ঘোষণা তিনি মনে রেখেছেন। দুয়ারে রেশন প্রকল্পেও অনুমোদন দিয়েছেন তিনি। মন্ত্রিসভায় এই প্রস্তাবগুলি পাশ করে নবান্ন থেকে গতকাল রাজ্যবাসীকে এ সম্পর্কে জানালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।