আপনার কি ঘুমানোর সময় লালা ঝড়ে? জানুন কি করে এই সমস্যা থেকে মুক্তি পাবেন

16
আপনার কি ঘুমানোর সময় লালা ঝড়ে? জানুন কি করে এই সমস্যা থেকে মুক্তি পাবেন

আমাদের সকলেরই কোন লোভনীয় খাবারের নাম শুনলে বা টক জাতীয় খাবারের নাম শুনলে জিভের ডগায় লালা চলে আসে, এটি অত্যন্ত সাধারণ ঘটনা। কিন্তু অনেকের ক্ষেত্রেই এটি একটি সমস্যা, ঘুমের সময় অনেকেরই মুখ থেকে লালা নিসারিত হয়। যার ফলে অনেকেই বিষয়টি কে নিয়ে খুবই আনকম্ফোর্টেবল ফিল করে। আসলে লালাগ্রন্থি থেকে লালা নিঃসৃত হয়, লালা খাদ্যকে সিক্ত করতে সাহায্য করে।

বিশেষত যাদের জন্মগতভাবে নাসারন্ধ্র ছোটো, তাদের এই ধরনের সমস্যা বেশি দেখা যায়। আর যাদের কোনো স্বাস্থ্যগত সমস্যা রয়েছে বা নিউরোলজি সমস্যা রয়েছে তাদের ক্ষেত্রে লালা সমস্যা দেখা যায়। স্ট্রোক মাল্টিপল স্কেলেরোসিসের সমস্যা রয়েছে তাদের এই সমস্যা বেশি দেখা যায়। তবে এই সমস্যা থেকে সমাধান পেতে হলে কয়েকটি পদ্ধতি অবলম্বন করলেই হবে, সেই পদ্ধতি গুলি হল

প্রথমত ঘুমের ধরন বদলে ফেলুন অর্থাৎ সোজা হয়ে শোয়ার অভ্যাস করুন তাহলেই দেখতে পাবেন এই সমস্যা দেখা যাচ্ছেনা। কারণ বেশিরভাগ উপুর হয়ে শুলে বা কোন সাইড দিয়ে শুলে সমস্যা দেখা দেয়। আপনার যদি সিল্প আ্যলপানিয়া থাকে সিপিএস মেশিন ব্যবহার করলে লালা সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। যদি এই সমস্যা না থেকে থাকে তাহলেও বিভিন্ন ধরনের ডিভাইস মেশিন রয়েছে সেগুলো ব্যবহার করলে শান্তিতে ঘুমানো যায় এবং এই সমস্যা থাকেনা। অনেক সময় সর্দি হওয়ার পরেও লালা সমস্যা দেখা যায় এরজন্য গরম ভাপ নিন। তাহলে আপনার নাক ছাড়বে এবং নানা সমস্যাও দেখা যাবেনা।

উঁচু বালিস ব্যবহার হওয়ার ফলে এই সমস্যা দেখা যায়। তাই যতটা পারুন উঁচু বালিশ ব্যবহার করুন। তবে এমন বালিশ ব্যবহার করবেন যাতে আপনি আরামে ঘুমাতে পারেন। অতিরিক্ত ওজন হওয়ার পরেও সমস্যা দেখা দেয় তাই নিজেকে ফিট আ্যন্ড ফাইন রাখুন। অনেক সময় অন্য রোগের পার্শ্ব প্রতিক্রিয়ার ফলে যে সমস্যা দেখা যায় সে ক্ষেত্রে ডাক্তারের পরামর্শ নাওয়া ভালো। তবে অনেকেই এই সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়ার জন্য বোস্টন ইনজেকশন ব্যবহার করে থাকে। কিন্তু এই ইলেকশন ব্যবহার করার ফলে সার্জারিও ফল যেতে পারে ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে এখনো উচিত।