জানেন কি পৃথিবীতে এমন একটি প্রদেশ রয়েছে যেখানে মৃত্যু প্রবেশ করতে পারে না! দেখে নিন

64
জানেন কি পৃথিবীতে এমন একটি প্রদেশ রয়েছে যেখানে মৃত্যু প্রবেশ করতে পারে না! দেখে নিন

জন্ম হলে মৃত্যু অবধারিত। মৃত্যুকে এড়ানো যায়না। তবে জানেন কি এই পৃথিবীতে এমন একটি প্রদেশ রয়েছে যেখানে নাকি মৃত্যু প্রবেশ করতে পারে না! শুনতে অবাক লাগলেও এখানকার বাসিন্দারা অন্তত তেমনটাই মনে করেন। এখানকার বাসিন্দাদের বিশ্বাস, কালের অমোঘ নিয়ম নাকি সেখানে চলে না। এখানকার বাসিন্দাদের মৃত্যু ছুঁতে পারে না!

এই অদ্ভুত জায়গার নাম লংইয়ারবিন। নরওয়ের সালবার্ডের কেন্দ্রে অবস্থিত এই শহরে মাত্র দুই হাজার মানুষের বাস। উত্তর ইউরোপের তিনটি দেশ নরওয়ে, সুইডেন ও ডেনমার্ককে একত্রে স্ক্যান্ডিনেভিয়ান বলা হয়। শোনা যায় একসময় নাকি এখানে পৃথিবীর বৃহত্তম কয়লা খনি ছিল। এই কয়লা খনি শ্রমিকদের থাকার জন্যেই লংইয়ারবিন শহর তৈরি করা হয়েছিল।

খাড়া পাহাড় আর হিমবাহ দিয়ে ঘেরা নিরিবিলি জায়গা অ্যাডজেন্টফোর্ডে থাকতেন খনির শ্রমিকরা। এরপর খনি শ্রমিকের আর সেখানেই স্থায়ী বসতি গড়ে তোলেন। ক্রমে সেখানে পর্যটন শিল্প গড়ে ওঠে। বছরের একটি দীর্ঘ সময় অন্ধকারে ঢাকা থাকে এই শহর। মৃত্যুর প্রবেশ সেখানে নিষিদ্ধ বলে মনে করেন স্থানীয় বাসিন্দারা।

কোন মুমূর্ষু মানুষের খোঁজ পাওয়া গেলে স্থানীয়রা তাকে মূল ভূখন্ড থেকে সরিয়ে নিয়ে যান। এই স্থান বছরের একটি বড় সময় ধরে বরফে ঢাকা থাকে। ঠিক এই কারণেই এখানে মৃতদেহ কবর দিলে তা মাটির সঙ্গে মিশে যায় না। বরং বরফের জন্য মৃতদেহ অক্ষত অবস্থায় থেকে যায়।